মহামারিতে শুধু আওয়ামী লীগই মাঠে আছে: তথ্যমন্ত্রী

মহামারিতে শুধু আওয়ামী লীগই মাঠে আছে
মহামারিতে শুধু আওয়ামী লীগই মাঠে আছে

নিউজ ডেস্ক : দোষারোপের রাজনীতি পরিহার করে আওয়ামী লীগের কাছ থেকে শিখে জনগণের পাশে থাকতে বিএনপিসহ অন্য সব দলের প্রতি আহবান জানিয়েছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

বৃহস্পতিবার রাজধানীর ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ উপকমিটির পক্ষ থেকে ওলামা এবং গণমাধ্যমকর্মীদের বিভিন্ন

সংগঠনকে স্বাস্থ্যসুরক্ষা সামগ্রী প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতা দেন তিনি। এসময় সবাইকে ঈদের আগাম শুভেচ্ছা জানান মন্ত্রী।

ড. হাছান বলেন, ‘মহামারির এই সময়ে শুধু আওয়ামী লীগই মাঠে আছে, জনগণের পাশে আছে, অন্য কাউকে দেখা যাচ্ছে না। শুধু খাদ্য আর স্বাস্থ্যসুরক্ষা সামগ্রীই নয়, আওয়ামী লীগ সংশ্লিষ্ট কৃষক লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ এমনকি আমাদের মহিলা নেতাকর্মীরাও কৃষকের ধান কেটে মাথায় নিয়ে বাড়ি বাড়ি পৌঁছে দিয়েছেন। এমন কাজ কোনো রাজনৈতিক দল করেনি। তাদের বলবো, দোষারোপের রাজনীতি পরিহার করে আওয়ামী লীগের কাছ থেকে শিখে অন্তত: জনগণের পাশে থাকুন।’

‘বিএনপির পুরো রাজনীতিই তারেক জিয়ার শাস্তি আর বেগম জিয়ার স্বাস্থ্য নিয়ে আবর্তিত হচ্ছে, জনগণের স্বাস্থ্য নিয়ে তারা ভাবে না’ উল্লেখ করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, আমাদের রাজনীতি জনগণের জন্য আর বিএনপির রাজনীতি হচ্ছে তাদের দুর্নীতিগ্রস্ত নেতা-নেত্রীদের বিচার-শাস্তি থেকে বাঁচানোর জন্য।

‘বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল দীর্ঘদিন নিঁখোজ থাকা ইলিয়াস আলীর পরিবারের সাথে দেখা করে বলেছেন, এদেশে কেউ নিরাপদ নয়’ -গণমাধ্যমের বরাত দিয়ে এই তথ্য উল্লেখ করে এর জবাবে ড. হাছান বলেন, ‘ইলিয়াস আলী কিভাবে গুম হয়েছেন, সেটি তো মির্জা আব্বাস সাহেবই জানিয়ে দিয়েছেন যে, বিএনপি নেতারাই তাকে গুম করেছেন এবং এই সত্য প্রকাশের দায়ে আবার মির্জা সাহেবকে কারণ দর্শাও নোটিশও দেয়া হয়েছে।’

‘২১ শে আগস্টে গ্রেনেড হামলা চালায় যে বিএনপি, বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচার বন্ধ করে, যাদের আমলে আহসানউল্লাহ মাস্টার, শাহ এএমএস কিবরিয়া, খুলনার মঞ্জুরুল ইমামের মতো মানুষদের প্রকাশ্য দিবালোকে হত্যা করা হয়, তাদের কারণেই দেশের মানুষ অনিরাপদ বোধ করতে পারে, অন্য কারো কারণে নয়’ বলেন মন্ত্রী।

আ’লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক সুজিত রায় নন্দীর সভাপতিত্বে দলের সাংগঠনিক সম্পাদক এস এম কামাল, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক মৃণাল কান্তি দাস প্রমুখ অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন।