অন্য দেশের টিকা আনার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে: তথ্যমন্ত্রী

অন্য দেশের টিকা আনার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে: তথ্যমন্ত্রী
অন্য দেশের টিকা আনার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে: তথ্যমন্ত্রী

নিউজ ডেস্ক : সরকার করোনার টিকা ভারতের পাশাপাশি অন্যান্য দেশ থেকেও আনার উদ্যোগ নিয়েছে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

মন্ত্রী বলেন, করোনার দ্বিতীয় ডোজের প্রাপ্যতা নিয়ে অনেক সংশয় ছড়ানো হয়েছিল। কিছু পত্রপত্রিকা, প্রচার মাধ্যম এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অনেক অপপ্রচার চালিয়ে করোনার দ্বিতীয় ডোজ নিয়ে জনগণের মধ্যে সংশয় তৈরির অপচেষ্টা করা হয়েছিল। কিন্তু বাস্তবতা হচ্ছে, ইতিমধ্যেই প্রায় ১৭ লাখ মানুষ করোনা টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিয়েছে।

করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণের পর বুধবার সচিবালয়ে ক্লিনিক ভবনে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে একথা জানান তিনি।

তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী বলেন, চলমান করোনা মহামারির মধ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মানুষকে স্বাস্থ্যসুরক্ষা দেওয়ার জন্য প্রথম থেকেই সচেষ্ট ছিলেন। এই মরণঘাতী করোনা মহামারি মোকাবিলা ও জনগণকে করোনা ভ্যাকসিন দেওয়ার ক্ষেত্রে বাংলাদেশ অনেক উন্নত দেশের তুলনায় এগিয়ে আছে। শুধুমাত্র ভারতে উৎপাদিত অপফোর্ডের টিকা নয়, অন্যান্য দেশ থেকেও টিকা আনার জন্য উদ্যোগ গ্রহণ করেছেন প্রধানমন্ত্রী।

তিনি গণমাধ্যমকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, গুজব প্রতিরোধে গণমাধ্যমের ভাইয়েরা সবসময়েই সচেষ্ট ছিলেন। নানা ধরণের গুজব রটনার এখনো অপচেষ্টার বিরুদ্ধে সাংবাদিকদের সোচ্চার থাকা আবশ্যক।