ঘরমুখো মানুষের ভিড় স্ট্যান্ডে-ঘাটে 

ঘরমুখো মানুষের ভিড় স্ট্যান্ডে-ঘাটে 
ঘরমুখো মানুষের ভিড় স্ট্যান্ডে-ঘাটে 

নিউজ ডেস্ক : বুধবার থেকে সারাদেশে শুরু হচ্ছে এক সপ্তাহের লকডাউন। এরআগে গত ৫ এপ্রিল থেকে বন্ধ রয়েছে দূরপাল্লার বাস। আর কাল থেকে শুরু হওয়া এক সপ্তাহের লকডাউনকালেও বন্ধ থাকবে। এক সপ্তাহের লকডাউন দুই সপ্তাহ পর্যন্ত গড়াতে পারে বলে অনেকের ধারণা। এপ্রেক্ষাপটে কর্মহীন মানুষ এবং যারা ঢাকায় এসে আটকা পড়েছিলেন, তারা গ্রামের বাড়ি ফিরতে মরিয়া। সোমবারও মানুষ বিকল্প বাহনে বাড়ি ফিরছেন। পথে পথে দুর্ভোগ মাড়িয়ে মানুষকে ছুটতে দেখা গেছে।

চলমান ‘সর্বাত্মক লকডাউনের’ ঘোষণায় শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌরুটে উভয়মুখী যাত্রীদের উপচে পড়া ভিড় ছিল। বর্তমান লঞ্চ বন্ধ থাকলেও ফেরি, স্পিডবোট, ট্রলারে হাজার হাজার যাত্রী গাদাগাদি ঠাসাঠাসি করে পারাপার হচ্ছেন। যাত্রীদের চাপ সামলাতে কম যানবাহন নিয়েই ফেরি পাড়ি দিতে বাধ্য হচ্ছেন। এদিকে গণপরিবহন বন্ধ থাকায় মাইক্রোবাস, মোটরসাইকেল, ইজিবাইকসহ বিভিন্ন যানবাহনে বাড়তি ভাড়া দিয়ে বাড়ি ফিরছে যাত্রীরা। কোথাও দেখা যায়নি স্বাস্থ্যবিধি মানার লক্ষণ।

সোমবার সকালে সায়েদাবাদ বাস টার্মিনালে গিয়ে দেখা গেছে সেখানে শত শত মানুষ বিকল্প যানবাহনের জন্য অপেক্ষা করছিলেন। সরকারি নির্দেশনা উপেক্ষা