ইউএনও’র নাম্বার ক্লোন করে শিক্ষকদের কাছে টাকা দাবি

ইউএনও’র নাম্বার ক্লোন করে শিক্ষকদের কাছে টাকা দাবি
ইউএনও’র নাম্বার ক্লোন করে শিক্ষকদের কাছে টাকা দাবি

গৌরীপুর (ময়মনসিংহ) সংবাদদাতা :  ময়মনসিংহের গৌরীপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) হাসান মারুফের সরকারি নাম্বার ক্লোন করে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের টাকা দাবি করেছে একটি প্রতারক চক্র।

শনিবার উপজেলার বিভিন্ন মাদরাসার অধ্যক্ষ ও মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকদের মোবাইলে ফোন করে ল্যাপটপ প্রদানের কথা বলে প্রতারক চক্র টাকা দাবি করে। এ ঘটনায় শনিবার গৌরীপুর থানায় সাধারণ ডায়েরি করা হয়েছে।

জানা গেছে, উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নাম্বার ক্লোন করে একটি প্রতারক চক্র শনিবার উপজেলার বিভিন্ন মাদরাসার অধ্যক্ষ ও মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকদের মোবাইলে যোগাযোগ করে। এসময় প্রতারক চক্র ইউএনও পরিচয়ে ল্যাপটপ দেয়ার কথা বলে অধ্যক্ষ ও প্রধান শিক্ষকদের কাছে ৯ হাজার টাকা দাবি করে। এবং টাকা পাঠানোর জন্য মোবাইল ব্যাংকিং অ্যাকাউন্টের (০১৬৩৭৬৮৮০৮৫) নাম্বার দেয়। বিষয়টি নিয়ে সন্দেহ তৈরি হলে শিক্ষকরা ঘটনা ইউএনওকে জানালে প্রতারক চক্রের টাকা হাতিয়ে নেয়ার প্রতারণা ভেস্তে যায়।

কিল্লা বোকাইনগর ফাযিল মাদরাসার অধ্যক্ষ সায়েদুল হক বলেন, শনিবার দুপুরে ইউএনও স্যারের নাম্বার থেকে ফোন করে বলা হয় জেলা প্রশাসকের কার্যালয় থেকে ৫৬ হাজার টাকা মূল্যের ল্যাপটপ দেয়া হবে। আপনি নিতে চাইলে দ্রুত ৯ হাজার টাকা পাঠিয়ে কাল অফিস থেকে ল্যাপটপ নিয়ে যাবেন। পরে ঘটনা ঊর্ধ্বতনদের অবহিত করলে প্রতারণার বিষয়টি প্রকাশ
পায়।

গৌরীপুর পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এনামুল হক সরকার বলেন ইউএনও স্যারের নাম্বার থেকে ফোন করে আমার কাছে স্থানীয় বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধানদের নাম্বার চায়। কিন্ত মোবাইলে কন্ঠস্বর অন্যরকম হওয়ায় আমি জানতে চাই স্যার শরীর খারাপ কিনা। তখন তিনি বলেন একটু ঠান্ডা-সর্দি লেগেছে তাই এই রকম। পরে ঘটনা আমি মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তাকে অবহিত করি।

ইসলামাবাদ সিনিয়র মাদরাসার অধ্যক্ষ রুকুনুদ্দিন বলেন ইউএনও স্যারের নাম্বার থেকে ফোন করে ল্যাপটপ দেয়ার কথা বলে একটি নাম্বারে দ্রুত ৯ হাজার টাকা পাঠাতে বলা হয়। কন্ঠস্বর ও কথাবার্তা অন্যরকম মনে হওয়ায় আমি টাকা না পাঠিয়ে বিষয়টি কর্তৃপক্ষকে অবহিত করলে জানতে পারি এটা প্রতারক চক্র ছিল।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার হাসান মারুফ বলেন, শনিবার আমার সরকারি নাম্বার ক্লোন করে একটি প্রতারক চক্র ৫৬ হাজার টাকা মূল্যের ল্যাপটপ দেয়ার কথা বলে প্রতারক চক্র বিকাশে টাকা দাবি করেছে। এ বিষয়ে থানায় অভিযোগ দেয়া হয়েছে। পাশাপাশি সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধানদের সর্তক থাকতে বলা হয়েছে।

গৌরীপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) খান আব্দুল হালিম সিদ্দিক বলেন, এ ঘটনায় থানায় সাধারণ ডায়েরি হয়েছে। পুলিশ ঘটনা তদন্ত ও অপরাধীদের ধরতে চেষ্টা চালাচ্ছে।