জাতীয় অভিযোজন পরিকল্পনা প্রণয়ন করছে সরকার: পরিবেশ মন্ত্রী

জাতীয় অভিযোজন পরিকল্পনা প্রণয়ন করছে সরকার: পরিবেশ মন্ত্রী
জাতীয় অভিযোজন পরিকল্পনা প্রণয়ন করছে সরকার: পরিবেশ মন্ত্রী

নিউজ ডেস্ক: দেশের সবচেয়ে অসহায় ও দুর্বল জনগোষ্ঠীকে সকল সহায়তা দেয়ার লক্ষ্যে কাজ করছে সরকার । বর্তমান সরকার একটি জাতীয় অভিযোজন পরিকল্পনা প্রণয়নের কাজ শুরু করেছে। জলবায়ু ক্ষতিগ্রস্ত ফোরাম (সিভিএফ) এর সভাপতি হিসেবে বাংলাদেশ বর্তমানে এবং ভবিষ্যতে জলবায়ু সহিষ্ণুতা বৃদ্ধির কার্যক্রম জরুরিভাবে জোরদার করছে। আন্তর্জাতিক জলবায়ু পরিবর্তন কেন্দ্র আইসিসিএসিএডি, গ্লোবাল সেন্টার অ্যাডাপ্টেশন (জিসিএ) এবং জলবায়ু ক্ষতিগ্রস্ত ফোরাম (সিভিএফ) যৌথভাবে আয়োজিত ৭ম বার্ষিক গ্লোবাল গবেষণা সম্মেলনের ভার্চুয়াল উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তাঁর সরকারি বাসভবন হতে যুক্ত হয়ে,  পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী মোঃ শাহাব উদ্দিন এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, দীর্ঘমেয়াদী কৌশলগত ১০০ বছরের ডেল্টা প্ল্যান ২১০০ অনুমোদিত এবং গৃহীত হয়েছে। জনগণকে জলবায়ু পরিবর্তনের প্রতিকূল প্রভাব থেকে রক্ষা করতে সরকার প্রয়োজনীয় সকল পদক্ষেপ গ্রহণ করছে। অভিযোজন আমাদের অন্যতম প্রধান অগ্রাধিকার হলেও, টেকসই উন্নয়নের লক্ষ্যে কম কার্বন নিঃসরণেও বাংলাদেশ তার প্রতিশ্রুতি মতো কাজ করে চলেছে। তিনি বলেন, ঝড়ের তীব্রতা কমানোসহ জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব হ্রাসে বৃক্ষরোপণের মাধ্যমে উপকূলীয় এলাকায় সবুজ বেষ্টনী তৈরির কাজ চলমান আছে।

ওয়েবিনারে জিসিএ’র সহসভাপতি বান কি মুন, পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবদুল মোমেন, পরিবেশ বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির চেয়ারম্যান সাবের হোসেন চৌধুরী এবং জিসিএ’র বিশিষ্ট ফেলো আবুল কালাম আজাদ বক্তব্য রাখেন। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন আইসিসিএইডির পরিচালক অধ্যাপক ড. সালিমুল হক।