করোনাযোদ্ধা ডাঃ হরি শংকর দাশের প্রশংসা মেয়র টিটুর

মো. নজরুল ইসলাম, ময়মনসিংহ :  দেশে করোনার শুরুতে লকডাউনে সবাই যখন নিজ আশ্রয়স্থলে আবদ্ধ, ঠিক তখনও জীবণের ঝুঁকি নিয়ে চেম্বারে নিরবচ্ছিন্ন রোগীর চিকিৎসাসেবা দিয়ে নজির সৃষ্টি করেছেন ৭২ বছর বয়স্ক মানবিক গুণী চিকিৎসক বিশিষ্ট চক্ষু বিশেষজ্ঞ ডাঃ হরি শংকর দাশকে ফুলেল শুভেচ্ছায় অভিনন্দন জানাতে তার চেম্বার নগরীর চরপাড়া মোড়ের পারমিতা চক্ষু হাসপাতালে ২৫ ডিসেম্বর সন্ধ্যায় সাক্ষাৎ করেন এবং ক্রেস্ট প্রদান করেন ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশনের প্রথম মেয়র মোঃ ইকরামুল হক টিটু।
দেশের সন্মোখসাঁড়ির করোনাযোদ্ধা ডাঃ হরি শংকর দাশের গৌববোজ্জ্বল নানা ভূমিকার ভূয়সী প্রসংশা করে মেয়র টিটু জানান, জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ডাকে সারা দিয়ে বীর মুক্তিযোদ্ধারা যেমনি এ দেশকে স্বাধীন করেছিল, ঠিক তেমনি করোনা মহামারি নিয়ন্ত্রণে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ডাকে সারা দিয়ে চিকিৎসকসহ সন্মোখসারির যোদ্ধারা ঝাঁপিয়ে পড়ে করোনা মোকাবেলা করে বিশ্বে খ্যাতি অর্জন করেছে। তেমনি একজন প্রবীনতম মানবিক চিকিৎসক করোনাযোদ্ধা হলো ডাঃ হরি শংকর দাশ।

এসময় আবেগাপ্লোত হয়ে মেয়র টিটু বলেন, তার মরহুম আম্মাকে বার বার ডাঃ হরি শংকর দাশের কাছে চিকিৎসা করাতে নিয়ে আসতেন, তিনি (মেয়রের আম্মা) বলতেন আমি ওই ডাক্তারের কাছে গেলে দারুন শান্তি পাই।

এসময় ডাঃ হরি শংকর দাশ মেয়র টিটুকে জানান, সৃষ্টিকর্তার কাছে তার একান্ত চাওয়া, তিনি যেন আমৃত্যু মানুষের সেবা করে যেতে পারেন। এরজন্য তিনি সকলের কাছে আশীর্বাদও কামনা করেন ।
এছাড়াও ডাঃ লায়ন হরিশংকর দাশের স্পন্সরে লায়ন স্বপন সেন গুপ্তের প্রস্তাবনায় মেয়র ইকরামুল হক টিটু, ডাঃ এইচ এ গোলন্দাজ তারা এবং শংকর সাহার লায়ন্স ক্লাবে যোগদান পর্ব অনুষ্ঠিত হয়। উপস্থিত ছিলেন ড্রিষ্ট্রিক গভর্নর লায়ন অ্যাডভোকেট সেলিমা রওশন, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী লায়ন মাহবুবুল আলম, লে: কর্ণেল (অব.) অধ্যক্ষ ড. শাহাব উদ্দিন আহমদ, লায়ন মিজানুর রহমান লিটন, কাউন্সিলর ফজলুল হক উজ্জল, অধ্যক্ষ মোঃ মনিরুজ্জামান, পারমিতা চক্ষু হাসপাতালের উপ-পরিচালক মিসেস ফাতেমা বেগম, লায়ন্স ক্লাবের সদস্যবৃন্দ এবং লিও আবদুল্লাহ আল হাসান প্রমূখ।