খালেদা জিয়ার মামলার নথি হাইকোর্টে যাচ্ছে রোববার

নিউজ ডেস্ক:  জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলার মূল নথি (রেকর্ড) বিচারিক আদালত থেকে রোববার হাইকোর্টে যাচ্ছে। বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার জামিন বিষয়েও রোববারই আদেশের জন্য দিন ধার্য রেখেছেন হাইকোর্ট।

বৃহস্পতিবার খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা জামিন আবেদনের ওপর আদেশ দেওয়ার জন্য হাইকোর্টে আবেদন জানান। এর পরিপ্রেক্ষিতে এ সংক্রান্ত আদেশের জন্য আজ দিন ধার্য রাখেন বিচারক।

খালেদা জিয়ার আইনজীবী সুপ্রিম কোর্ট বারের সভাপতি জয়নুল আবেদীন আশা প্রকাশ করে বলেন, ‘আপিলকারী একজন বয়স্ক নারী। এ ছাড়া তিনি শারীরিকভাবে অসুস্থ। শারীরিক অসুস্থতা এবং সামাজিক অবস্থান বিবেচনায় নিয়ে তার জামিন চাওয়া হয়েছে। এ পর্যায়ে আদালত তার জামিন মঞ্জুর করতে পারেন।’

নিম্ন আদালত সূত্রে জানা গেছে, রোববার সকালে হাইকোর্টে নথি পাঠানো হবে। এ সংক্রান্ত সকল প্রক্রিয়া শেষ হয়েছে বলে শনিবার গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৫ এর বেঞ্চ সহকারী মোকাররম হোসেন।

বিদেশ থেকে আসা এতিমদের টাকা আত্মসাতের মামলায় গত ৮ ফেব্রুয়ারি ঢাকার পঞ্চম বিশেষ আদালত বিএনপি চেয়ারপারসন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়াকে পাঁচ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেন। ওই দিনই খালেদা জিয়াকে পুরান ঢাকার সাবেক কেন্দ্রীয় কারাগারে নিয়ে যাওয়া হয়। রায়ে খালেদা জিয়ার বড় ছেলে বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানসহ পাঁচ আসামিকে ১০ বছর করে কারাদণ্ড দেওয়া হয়। এ ছাড়া রায়ে আসামিদের দুই কোটি ১০ লাখ ৭১ হাজার ৬৪৩ টাকা ৮০ পয়সা জরিমানা করা হয়।

এরপর খালেদা জিয়ার করা আপিল আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে হাইকোর্ট গত ২২ ফেব্রুয়ারি আপিল শুনানির জন্য গ্রহণ করেন এবং জরিমানা স্থগিত করেন। এরপর জামিন আবেদন করা হলে ২৫ ফেব্রুয়ারি হাইকোর্টের একই বেঞ্চ বিচারিক আদালতের মামলার যাবতীয় নথি তলব করেন। আদেশে ১৫ দিনের মধ্যে হাইকোর্টে নথি পাঠাতে বলা হয়। আজ ১১ মার্চ হাইকোর্টের নির্ধারিত ১৫ দিন শেষ হবে।