আবারও নৌকায় ভোট চাইলেন প্রধানমন্ত্রী

নিউজ ডেস্ক: আবারও নৌকায় ভোট চাইলেন আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

খুলনায় সার্কিট হাউজ মাঠে জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগ আয়োজিত জনসভায় আজ শনিবার বিকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, নৌকা আমাদের স্বাধীনতা এনে দিয়েছে। নৌকা আমাদের মাতৃভাষার অধিকার এনে দিয়েছে। নৌকায় ভোট দিয়েছিলেন বলেই দেশ আজ এগিয়ে চলেছে। উন্নয়নের ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখতে চাইলে নৌকা মার্কায় ভোট দিন।

এসময় তিনি উপস্থিত লাখো জনতাকে উদ্দেশ্য করে বলেন, আপনাদের সিদ্ধান্ত নিতে হবে, দেশ এগিয়ে যাবে নাকি আবার ধ্বংসের দিকে ধাবিত হবে? যদি উন্নয়ন চান, তাহলে নৌকা মার্কায় ভোট দিতে হবে। আপনারা কি দেবেন নৌকা মার্কায় ভোট? এসময় লাখো জনতা তাদের দুই হাত উচিয়ে আওয়ামী লীগ সভানেত্রীকে জানান দেন তারা আগামীতে নৌকাকেই ভোট দেবেন।

আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা বিএনপির সমালোচনা করে বলেন, তারা সৃষ্টি করতে জানে না। তারা ধ্বংস করতে পারে। আমরা সৃষ্টি করি আর তারা ধ্বংস করে। জীবন দিতে পারে না, মানুষ হত্যা করতে পারে। আমি স্বাস্থ্য কেন্দ্র ও হাসপাতাল করি। আর তারা বন্ধ করে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, দুর্নীতিবাজকে সাজা পেতেই হবে। খালেদা জিয়া দুর্নীতি মামলায় রায় হয়েছে। তাই তিনি জেলে। এখানে আওয়ামী লীগের কিছুই করার নেই। অপরাধীকে শাস্তি পেতেই হবে।

বিএনপি আমলে খুলনা সন্ত্রাসের নগরী ছিল জানিয়ে তিনি বলেন, মঞ্জুরুল ইমাম থেকে সাংবাদিক হুমায়ুন কবির বালু কেউ রেহাই পায়নি বিএনপি-জামায়াতের হাত থেকে। আগামীতে যেন আর সন্ত্রাসের নগরীতে পরিণত না হয়, সেজন্য নৌকায় ভোট দিতে হবে। উন্নয়নের ধারাবাহিকতার জন্য অাগামীতে নৌকার বিজয় হবেই ইনশাাল্লাহ। উন্নয়নের ধারাবাহিকতাও অব্যাহত থাকবে।

জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি হারুনুর রশিদের সভাপতিত্বে কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় নেতারা বক্তব্য রাখেন