ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্টের সাথে প্রধানমন্ত্রীর দ্বিপাক্ষিক আলোচনা শুরু

নিউজ ডেস্ক: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদোর মধ্যে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে দ্বিপাক্ষিক আলোচনা শুরু হয়েছে। এর আগে তারা কিছুক্ষণ একান্তে বৈঠক করেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ সকাল ৯টা ৪৯ মিনিটে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের টাইগার গেটে ফুলের তোড়া উপহার দিয়ে ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্টকে স্বাগত এবং উষ্ণ সংবর্ধনা জানান।

দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো ইন্দোনেশিয়ার পক্ষে এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশের পক্ষে নেতৃত্ব দিচ্ছেন।

বৈঠকের পর বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী এবং ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্টের উপস্থিতিতে দুই দেশের মধ্যে কয়েকটি চুক্তি ও সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হবার কথা রয়েছে।

বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি মো.আব্দুল হামিদের আমন্ত্রণে ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো গতকাল বিকেলে দুই দিনের সরকারি সফরে বাংলাদেশে আসেন।

গত রাতে রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদের সঙ্গে এক সৌজন্য সাক্ষাতের মধ্য দিয়ে বাংলাদেশে ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্টের সরকারি সফর শুরু হয়।

১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধের বীর শহীদদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য উইদোদো ভোরে সাভারের জাতীয় স্মৃতিসৌধে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন।

পরে তিনি ধানমন্ডির ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘরে রক্ষিত জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করে বাংলাদেশের স্বাধীনতার মহান স্থপতি এবং সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালির প্রতি সম্মান প্রদর্শন করেন।

বিকেলে উইদোদো মিয়ানমার থেকে বাস্তুুচ্যুত হয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় গ্রহণকারী রোহিঙ্গা শরণার্থীদের অবস্থা সচক্ষে প্রত্যক্ষ করতে কক্সবাজার যাবেন।

বৌদ্ধ সংখ্যাগরিষ্ঠ মিয়ানমারের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চল রাখাইন রাজ্যে সেনা অভিযানের পর বাস্তুচ্যুত রোহিঙ্গারা গত বছর ২৫ আগস্ট থেকে বাংলাদেশে আসতে শুরু করে।

দুই দিনের সরকারি সফর শেষে আগামীকাল সকাল ৯টায় ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্টের দেশে ফেরার কথা রয়েছে।