অ্যানিমিয়া সারাতে ধনেপাতা

নিউজ ডেস্ক: আজকাল সারাবছরই ধনে পাতা পাওয়া যায়। তবে শীতের সময়ে বাজারে এর সরবরাহ বছরের অন্যান্য সময়ের চাইতে অনেক বেড়ে যায়। ধনে পাতা এক ধরনের সুগন্ধি ঔষধি গাছ। সাধারণত রান্নায় সুবাস আনার জন্য এটি ব্যবহার করা হয়। কেউ কেউ শুধুমাত্র খাবার সাজানোর উপকরণ হিসাবেও এটি ব্যবহার করেন। অনেকেই জানেন না, সুগন্ধি এ পাতার রয়েছে অসাধারন সব পুষ্টিগুণ। দেহের প্রয়োজনীয় তেলের এগারোটি উপাদান থাকে এই পাতায়। এছাড়া বিভিন্ন ধরনের ভিটামিন যেমন- সি, কে এবং খনিজ লবণের উৎসও হচ্ছে এই ধনে পাতা। এতে ক্যালসিয়াম, ফসফরাস, পটাশিয়াম, থায়ামিন, নিয়াসিন এবং ক্যারোটিনও রয়েছে।

ধনে পাতা শরীরে খারাপ কোলেষ্টেরল কমায়, ভাল কোলেষ্টেরলের মাত্রা বাড়ায়। এটি হজম শক্তি বৃদ্ধি করে, লিভার সুস্থ রাখে । অনেকেরই হয়তো জানা নেই, এই পাতাটি ডায়বেটিস রোগীদের জন্যও উপকারী। এটি শরীরে ইনসুলিনের মতো কাজ করে এবং রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে। এতে থাকা ভিটামিন কে আলঝাইমার রোগীদের জন্য বেশ উপকারী। এতে এন্টিঅক্সিডেন্ট থাকায় এটা ফুসফুস এবং মুখের ক্যান্সারের জন্য বেশ কার্যকারী। এটি আর্থাইটিস রোগীদের জন্যও উপকারী। মুখের ক্ষত সারানোর জন্য ধনেপাতা এন্টিসেপটিক হিসাবে কাজ করে। এটি চোখের জন্যও ভাল। এতে থাকা এন্টিঅক্সিডেন্ট চোখের রোগ প্রতিরোধ করে, চোখের প্রদাহের চিকিৎসায় কাজে লাগে। ধনে পাতা স্নায়ুতন্ত্র ভাল রাখে, একারণে এটি স্মৃতিশক্তি বাড়াতে সাহায্য করে। এতে প্রচুর পরিমাণে আয়রণ থাকায় এটি অ্যানিমিয়া বা রক্তস্বল্পতার মতো রোগ সারাতে সহায়তা করে। সুত্র : টাইমস অফ ইণ্ডিয়া