মঠবাড়িয়ায় হত্যা মামলার অাসামী গ্রেপ্তার

 পিরোজপুর প্রতিনিধি: পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ার দেবীপুর গ্রামের ছোট ভাই কৃষক ইউনুস সিকদার হত্যা মামলার আসামী বড় ভাই আনেচ সিকদার (৬৫) ও তার স্ত্রী লাইলী বেগম (৫৮) কে মঙ্গলবার বিকেলে থানা পুলিশ নিজ বাড়ী থেকে গ্রেফতার করেছে। আনেচ সিকদার দেবীপুর গ্রামের মৃত. গোলাম আলী সিকদারের পুত্র।

মামলা সূত্রে জানা যায়, দেবীপুর গ্রামের মৃত্যৃ. গোলাম আলীর কনিষ্ট পুত্র ইউনুস সিকদারের সাথে বড় ভাই আনেচ সিকদারের দীর্ঘদিন ধরে পৈত্রিক জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। এ নিয়ে আদালতে দুই ভাইয়ের মধ্যে একাধিক মামলাও রয়েছে। জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে গত ৪ সেপ্টেম্বর ২০১৫ সালের আনেচ ও তার পুত্র, জামাই সহ দলবল প্রকাশ্যে ছোট ভাই ইউনুসকে ধরে বেধরক মারধর করে হাত-পা ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেয়। তাৎক্ষণিক ইউনুসকে বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে ভর্তির পর ডাক্তার তাকে ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে রেফার করে। নিহতের স্ত্রী লিলি বেগম জানান, চিকিৎসার অর্থ যোগার করতে না পারায় গুরুতর আহত অবস্থায় ঢাকায় না নিয়ে বাড়ীতে নিয়ে আসে। পরে ২৪ অক্টোবর ইউনুস নিজ বসত ঘরে চিকিৎসার অভাবে মারা যায়।

মঠবাড়িয়া থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) কে.এম.তারিকুল ইসলাম জানান, গ্রেফতারকৃত আনেচের বিরুদ্ধে মঠবাড়িয়া থানায় হত্যা ও প্রতারণাসহ একাধিক মামলা রয়েছে।

প্রিন্স, ঢাকা