তামিমকে হারিয়ে হতাশ চিটাগং ভাইকিংস

নিউজ ডেস্ক: লোকাল বয় তামিম ইকবালকে হারিয়ে অনেকটাই হতাশ চিটাগং ভাইকিংস। গেল চার আসরে শিরোপার স্বাদ না পেলেও, এবার লড়াইয়ে ফিরতে চায় দলটি, এমনটাই জানিয়েছেন ম্যানেজার হাসানুজ্জামান ঝরু।

এছাড়া, বিদেশী কোটায় দলে অন্তর্ভুক্ত হতে পারেন আরো কিছু খেলোয়াড়, দেখা যেতে পারে অজি ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নারকেও, এমনটাই আভাস দিয়েছেন তিনি।

বিপিএলের দল গোছানো নিয়ে মিডিয়ায় হৈ চৈ এর কমতি নেই। প্লেয়ার ড্রাফটের আগেই, আইকন কে হচ্ছেন, লোকাল হিরোরা কে কোথায় যাচ্ছেন কিংবা কোন দলে কোন বিদেশী তারকা আসছেন, এসব নিয়ে আলোচনা-গুঞ্জনের শেষ নেই। অন্যান্য দলগুলোকে পাওয়া গেলেও, একেবারে পর্দার আড়ালে চট্টগ্রাম ভাইকিংস। প্লেয়ার ড্রাফটের আগপর্যন্ত গণমাধ্যমের মুখোমুখি হতে চাননি দলটির কোন কর্মকর্তাই।

প্লেয়ার ড্রাফটের মাধ্যমে বিপিএলের এবারের আসরের দল গোছানোর কাজ অনেকটাই শেষ করেছে সবগুলো দল। দল গুছিয়েছে চট্টগ্রাম ভাইকিংসও। তবে চার আসরে একবারও চ্যাম্পিয়নশিপের স্বাদ না পাওয়া চট্টগ্রামের দলটি হেভিওয়েটের তকমা পায়নি এবারও, মানছেন দলটির ম্যানেজার। তবু দল নিয়ে বেশ আশাবাদীই তিনি।

চট্টগ্রাম ভাইকিংসের ম্যানেজার হাসানুজ্জামান ঝরু বলেন, ‘আমরা আমাদের দল নিয়ে সন্তুষ্ট। আমরা চেষ্টা করেছি, গত দুই বছরের যে দুর্বলতাগুলো আছে সেগুলো নিয়ে কাজ করার। হয়তো হেভিওয়েট কোন টিম হয়নি। গত দুই বছরে আমাদের হেভিওয়েট টিম ছিলো কিন্তু ভালো পারফর্ম করতে পারি নাই।’

আগের আসরগুলোয় লোকাল বয় তামিম ইকবাল আইকন প্লেয়ার থাকলেও, দলবদল করে এবার কুমিল্লায় যোগ দিয়েছেন তিনি। বিশ্বের অন্যতম সেরা ওপেনারকে হারিয়ে অনেকটাই হতাশ ভাইকিংস।

হাসানুজ্জামান ঝরু বলেন, ‘তামিমের সত্যিই বিকল্প নাই। তামিম চট্টগ্রামেরই ছেলে। সে থাকলে আমাদের জন্য ভালো হতো। সৌম্য এই পরিবেশে একদম নতুন কিন্তু তামিম দুইটা বছর পার করেছিলো এবং স্বাভাবিকভাবে চিটাগং ভাইকিংসে তামিমের অবদান আছে।’

বিদেশী খেলোয়াড়দের কোটায় আছেন লুক রঙ্কি-লিয়াম ডওসনরা। দলের বিদেশি ক্রিকেটারদের নিয়ে সন্তোষ প্রকাশ করলেও দেশের ক্রিকেটের জন্য এতো বিদেশি হুমকি হয়ে উঠতে পারে বলেও মনে করেন সাবেক এই ক্রিকেটার।

আগামী ৩ অক্টোবর থেকে শুরু হবে বিপিএলের ৫ম আসর।