চট্টগ্রাম রেলস্টেশনে উপচে পড়া ভিড়

রনজিত কুমার শীল, চট্টগ্রাম : চট্টগ্রাম রেল স্টেশনে অগ্রিম টিকেট নিতে যাত্রীদের উপচে পড়া ভিড়। শেষ দিকে এসে চট্টগ্রাম রেলওয়ে স্টেশনে ভিড় বেড়েছে ঈদে বাড়ি ফেরা যাত্রীদের। অগ্রিম টিকেট বিক্রির ৫ম দিন গতকাল মঙ্গলবার স্টেশনে যাত্রীদের ভিড় ছিল। অনেক ট্রেনের টিকেট দুপুরের আগেই বিক্রি হয়ে গেছে বলে জানিয়েছেন রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের বিভাগীয় বাণিজ্যিক কর্মকর্তা মিজানুর রহমান।

তিনি বলেন, অগ্রিম টিকেট বিক্রির চতুর্থ দিন ভোরেই যাত্রীরা স্টেশনে এসে ভিড় করেন। আজ দীর্ঘ লাইনে দাঁড়িয়ে যাত্রীদের টিকিট সংগ্রহ করতে হয়েছে। অধিকাংশ ট্রেনের টিকিট দুপুরের আগেই শেষ হয়ে গেছে। এর আগে গত ১৮ আগস্ট অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরু করে রেলওয়ে পূর্বাঞ্চল। ওইদিন ২৭ আগস্টের টিকেট বিক্রির মধ্যদিয়ে শুরু হয় অগ্রিম টিকিট বেচা-কেনা। কিন্তু সেই দিন স্টেশনে যাত্রীদের তেমন কোনও ভিড় দেখা যায়নি।

রেলওয়ে পূর্বাঞ্চল সূত্র জানায়, ১৮ আগস্ট অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরুর পর ১৯ আগস্ট তারা ২৮ আগস্টের টিকেট বিক্রি করেন। গত রোরবার (২০ আগস্ট) ২৯ আগস্টের টিকিট বিক্রি করেন। গতকাল মঙ্গলবার (২২ আগস্ট) ৩১ আগস্টের টিকেট বিক্রি করেন তারা।

চট্টগ্রাম রেল স্টেশনে অগ্রিম টিকেন নিতে যাত্রীদের ভিড়স্টেশনে টিকেট কিনতে আসা যাত্রীরা অভিযোগ করেন, সকাল আটটায় টিকিট বিক্রি শুরুর কিছুক্ষণ পরই কাউন্টার থেকে জানানো হয় এসি আসনগুলো শেষ হয়ে গেছে। দুপুর ১২টার সময় জানানো হয়, সোনার বাংলা ও বিজয় এক্সপ্রেস ট্রেনের কোনও টিকেট নেই। সবকটি টিকেট বিক্রি হয়ে গেছে।

অসাধু কর্মকর্তাদের যোগসাজসে ব্ল্যাকাররা টিকিটগুলো হাতিয়ে নিয়েছেন বলে তারা অভিযোগ করেন। তবে রেলওয়ে কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ৩০ আগস্ট বাড়ি ফেরার যাত্রী তুলনামূলক বেশি থাকায় টিকিটগুলো দ্রæত বিক্রি হয়ে গেছে। এ ব্যাপারে জানতে চট্টগ্রাম রেলস্টেশনের ম্যানেজার আবুল কালাম আজাদকে প্রায় ২ ঘণ্টা ধরে একাধিকবার মোবাইল করা হলে তার মোবাইল ব্যস্ত পাওয়া যায়।

অন্যদিকে রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের বাণিজ্যিক কর্মকর্তা মিজানুর রহমান জানিয়েছেন, ৩০ আগস্টের টিকেটের চাহিদা বেশি ছিল। ওই দিন থেকে কিছু কিছু প্রতিষ্ঠানে ঈদের ছুটি শুরু হবে। তাই গতকাল স্টেশনে যাত্রীদের উপচে পড়া ভিড় ছিল। এ কারণে দ্রæত টিকেট বিক্রি হয়ে গেছে। তবে কিছু কিছু ট্রেনের টিকেট বিকেল পর্যন্ত ছিল।