বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বাড়াতে বাংলাদেশ-ভিয়েতনামের সম্মতি

নিউজ ডেস্ক: পররাষ্ট্র সচিব পর্যায়ের প্রথম বৈঠকে দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বাড়াতে সম্মত হয়েছে বাংলাদেশ ও ভিয়েতনাম। রবিবার রাজধানীর রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন মেঘনায় হয় এই বৈঠক। এতে বাংলাদেশ প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দেন পররাষ্ট্র সচিব শহীদুল হক। ভিয়েতনাম প্রতিনিধিদলের নেতৃত্বে ছিলেন দেশটির উপ-পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডেং দিন কাই।

বৈঠকে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ ছাড়াও কৃষি, মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ, সংস্কৃতি, পর্যটন ও শিক্ষা খাতে সহযোগিতার উপায় নিয়ে আলোচনা হয়। এছাড়া জলবায়ু পরিবর্তনের নেতিবাচক প্রভাব মোকাবেলা এবং পারস্পরিক স্বার্থসংশ্লিষ্ট আঞ্চলিক ও আন্তর্জাতিক ইস্যুতে আলাপ হয়। এর আগে ভিয়েতনামের প্রতিনিধিদল পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলমের সঙ্গে তার দফতরে সাক্ষাৎ করেন। প্রতিমন্ত্রী দুই দেশের দীর্ঘ দিনের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের কথা উল্লেখ করেন।

তিনি বলেন, বিগত এক দশকে ভিয়েতনাম অর্থনৈতিক ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি অর্জন করেছে। বাংলাদেশ ও ভিয়েতনামের দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য বাড়ানোর প্রচুর সুযোগ রয়েছে। এছাড়া ভিয়েতনাম যৌথ উদ্যোগে বাংলাদেশে বিনিয়োগ করতে পারে। কৃষি ও মৎস্য খাতে ভিয়েতনামের সহযোগিতা চান শাহরিয়ার আলম।

ভিয়েতনাম ও বাংলাদেশের মধ্যে বিদ্যমান বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্ভাবনা কাজে লাগানোর ওপর গুরুত্বারোপ করেন ডেং দিন কাই। তিনি বলেন, বাংলাদেশের সাথে দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য বাড়াতে ভিয়েতনাম আগ্রহী। দুই দেশের ব্যবসায়ীরা পরস্পরের দেশে বিনিয়োগ সম্ভাবনা খতিয়ে দেখতে পারে।