বঙ্গবন্ধুর ভাষণ বাঙালী জাতিকে মুক্তির লক্ষ্যে ঐক্যবদ্ধ করে

বঙ্গবন্ধুর ভাষণ বাঙালী জাতিকে মুক্তির লক্ষ্যে ঐক্যবদ্ধ করে
বঙ্গবন্ধুর ভাষণ বাঙালী জাতিকে মুক্তির লক্ষ্যে ঐক্যবদ্ধ করে

নিউজ ডেস্ক : বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী,বীরপ্রতীক, এমপি বলেছেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১৯৭১ সালের ৭ই মার্চের ভাষণে সমগ্র বাঙালি জাতি মুক্তির লক্ষ্যে ঐক্যবদ্ধ হয়েছিলো। বঙ্গবন্ধুর ভাষণ শুনে আমরা বাঙালিরা যুদ্ধের প্রস্তুতি গ্রহণ করি। তারপর বঙ্গবন্ধু ২৬শে মার্চ বাংলাদেশ স্বাধীন ঘোষণা দেয়। আমরা বঙ্গবন্ধুর ডাকে যুদ্ধ করেছি।

রবিবার ৭ মার্চ নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে উপজেলা প্রশাসন কর্তৃক ‘ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ দিবস-২০২১’ উদযাপন উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে গোলাম দস্তগীর গাজী,বীরপ্রতীক এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধু আমাদের স্বাধীনতার প্রতীক। বঙ্গবন্ধুর জন্ম না হলে বাংলাদেশ স্বাধীন হতো না। ৭ মার্চের ভাষণকে অস্বীকার করা মানে বাংলাদেশের স্বাধীনতাকে অস্বীকার করা। বঙ্গবন্ধু শুধু বাঙালির না। উনি সারা বিশ্বের নেতা। ৭ মার্চের ভাষণ শুধু বাংলাদেশ নয়, সারা বিশ্ববাসির একটি সম্পদ। পরাধীন জাতির মুক্তির একটি ঐতিহাসিক বার্তা। বঙ্গবন্ধু ছিলেন বিশ্বের শোষিত মানুষের কন্ঠস্বর। যেখানেই অন্যায় অবিচার ছিলো সেখানেই বঙ্গবন্ধু প্রতিবাদ করেছেন।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দক্ষ নেতৃত্বে বাংলাদেশ আজ বিশ্বে মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়েছে। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের সোনার বাংলা প্রতিষ্ঠায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। প্রধানমন্ত্রীর দুরদর্শী সিদ্ধান্তের কারণে আজ দেশের মানুষ টিকা পাচ্ছে। করোনাকালে বঙ্গবন্ধুর কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দক্ষ নেতৃত্বে বাংলাদেশে উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে স্বীকৃতি পেয়েছে। তাই ঐক্যবদ্ধভাবে শেখ হাসিনাকে আমাদের সহায়তা করতে হবে ।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার শাহ্ নূসরাতসহ এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে রূপগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান মো:শাহজাহান ভূইয়া প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

ঢাকানিউজ২৪.কম