অস্ট্রেলিয়াতে রপ্তানি করা ভ্যাকসিন আটকে দিল ইতালি

করোনাভাইরাসের টিকার দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া শুরু
করোনাভাইরাসের টিকার দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া শুরু

নিউজ ডেস্ক:   ইতালি থেকে অস্ট্রেলিয়াতে রপ্তানি হতে যাওয়া ভ্যাকসিনের একটি বড় চালান আটকে দেওয়া হয়েছে।

দেশটিতে তৈরি অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার ভ্যাকসিনের এই আড়াই লাখ ডোজ অস্ট্রেলিয়াতে রপ্তানি হওয়ার কথা ছিল বলে জানিয়েছে বিবিসি।

ইউরোপীয় ইউনিয়নের নতুন নিয়ম অনুযায়ী কোনো প্রতিষ্ঠান যদি ইইউর বাধ্যবাধকতা পূরণে ব্যর্থ হয় তাহলে তারা ভ্যাকসিন রপ্তানি বন্ধ করে দেওয়ার ক্ষমতা রাখে। এই প্রথম ইতালি সেই নিয়মটি প্রয়োগ করলো।

অস্ট্রেলিয়া বলছে, ভ্যাকসিনের একটি মাত্র চালান বন্ধ হওয়ার ঘটনা দেশে ভ্যাকসিন প্রয়োগের ক্ষেত্রে কোনও প্রভাব ফেলতে পারবে না।

ইউরোপীয় ইউনিয়নের সমর্থনেই ইতালি এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে জানিয়েছেে খবরে বলা হচ্ছে।

চলতি বছরের প্রথম তিন মাসে ইইউ সদস্য দেশগুলোকে রপ্তানি চুক্তির ৪০ শতাংশ সরবরাহের পথে রয়েছে অ্যাস্ট্রাজেনেকা। সরবরাহ ঘাটতির জন্য উৎপাদন স্বল্পতার কথা বলছে প্রতিষ্ঠানটি।

অ্যাস্ট্রাজেনেকা ও ফাইজারের টিকা সরবরাহে বিলম্ব হওয়ার ঘটনাকে অপ্রত্যাশিত বলেছেন ইতালির প্রধানমন্ত্রী জিউসেপ কোঁতে।

ভ্যাকসিন কার্যক্রম নিয়ে ব্যাপক সমালোচানার মুখে পড়েছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন।

গত সপ্তাহেই ইতালি ইইউর কাছে অস্ট্রেলিয়ার উদ্দেশে পাঠানো অ্যাস্ট্রাজেনেকার ভ্যাকসিনটির এই চালানটি আটকে দেওয়ার কথা জানিয়েছিল।

ইতালি বলছে, গত ২৪ ফেব্রুয়ারি অনুমোদনের জন্য তারা আবেদন পেয়েছিল। এর আগের আবেদনটি তারা অনুমোদন করেছিল। অস্ট্রেলিয়া ঝুঁকিপূর্ণ দেশের তালিকায় নেই। ইইউ ও ইতালিতে টিকার ঘাটতি রয়েছে।

অস্ট্রেলিয়া জানিয়েছে, এরই মধ্যে তারা তিন লাখ ডোজ ভ্যাকসিন গ্রহণ করেছে। স্থানীয় পর্যায়ে ভ্যাকসিন উৎপাদনের পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে।