মুক্তিযুদ্ধ যাদুঘরে “রূপসা নদীর বাঁকে” চলচ্চিত্রটির প্রদর্শনী

মুক্তিযুদ্ধ যাদুঘরে “রূপসা নদীর বাঁকে” চলচ্চিত্রটির প্রদর্শনী
মুক্তিযুদ্ধ যাদুঘরে “রূপসা নদীর বাঁকে” চলচ্চিত্রটির প্রদর্শনী

নিউজ ডেস্ক:   মহান মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষ্যে ২০শে ও ২১শে ফেব্রুয়ারী মুক্তিযুদ্ধ যাদুঘরে দর্শনীর বিনিময়ে তানভীর মোকাম্মেল পরিচালিত “রূপসা নদীর বাঁকে” চলচ্চিত্রটি প্রদর্শিত হবে। প্রদর্শনীর সময়সূচী হচ্ছে প্রতিদিন বিকেল ৪.০০টা ও সন্ধ্যা ৭.০০টায়।

বাংলাদেশ সরকারের অনুদানপ্রাপ্ত “রূপসা নদীর বাঁকে” চলচ্চিত্রটি একজন ত্যাগী বামপন্থী নেতার জীবনী নিয়ে যাঁকে ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধের সময় রাজাকারেরা হত্যা করে। ২ ঘন্টা ১৭ মিনিট দৈর্ঘ্যরে চলচ্চিত্রটির কাহিনী ও চিত্রনাট্য রচনা করেছেন তানভীর মোকাম্মেল, চিত্রগ্রহণ করেছেন মাহফুজুর রহমান, সম্পাদনায় ছিলেন মহাদেব শী, শিল্প নির্দেশনা ও প্রধান সহকারী পরিচালক উত্তম গুহ, আবহসঙ্গীতে সৈয়দ সাবাব আলী আরজু, পোষাকে চিত্রলেখা গুহ ও মেক আপে মোহাম্মদ বাবুল। সহকারী পরিচালক ছিলেন রানা মাসুদ, সৈয়দ সাবাব আলী আরজু ও সগীর মোস্তফা।

“রূপসা নদীর বাঁকে” ছবিটিতে অভিনয় করেছেন জাহিদ হোসেন শোভন, খায়রুল আলম সবুজ, নাজিবা বাশার, রামেন্দু মজুমদার, চিত্রলেখা গুহ, ঝুনা চৌধুরী, আফজাল কবির, রাজীব সালেহীন, উত্তম গুহ, মাসুম বাশার, আবদুল্লাহ রানা, বৈশাখী ঘোষ, সংগীতা চৌধুরী, মিলি বাশার, জেবুন্নেসা টুনটুনি, পাভেল ইসলাম, শরীফ হোসেন ইমন, মোহসীন শামীম, ইকবাল আহমেদ, এনায়েত এ মাওলা জিন্নাহ. খন্দকার সোহান, পংকজ মজুমদার, ইব্রাহীম বিদ্যুৎ, শ্যামল বিশ্বাস, আছিরউদ্দীন মিলন, নবকুমার সরকার, জহির বাচ্চু, মৃণাল দত্ত, প্রশান্ত কর্মকার, স্বপন গুহ, শেখ আবুল খায়ের, নাহার কৃপা, অপরূপ রাহী, আজম শেখ, রানা মাসুদ, রেজাউল করিম সিদ্দীক, মেহেদী আল আমীন, শিশু শিল্পী তূর্য, হিয়া, হিমু, পৌর্শিয়া ও অতিথি শিল্পী অ্যান্ড্রু জোন্স।