ফেসবুক গুগল ইউটিউব থেকে বিপুল অংকের রাজস্ব বঞ্চিত বাংলাদেশ

বিশেষ প্রতিবেদক:   সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক, গুগল, ইউটিউব থেকে ভ্যাট পাচ্ছে না বাংলাদেশ। উচ্চ আদালতের নির্দেশ থাকলেও জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সুনির্দিষ্ঠ নীতি মালা না থাকায় ও যথাযথ প্রয়োগের অভাবে, খোড়া যুক্তিতে বিপুল অংকের রাজস্ব থেকে বঞ্চিত হচ্ছে বাংলাদেশ। ব্যাহত হচ্ছে সামগ্রীক উন্নয়ন ।

অবাধ তথ্য প্রবাহের যুগে সামাজিক যোগাযোগসমূহ সকল বয়সী মানুষের মধ্যে দিনদিনই জনপ্রিয় হয়ে উঠছে । অনলাইন সংবাদপত্র, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক, অনলাইন ভিডিও শেয়ারিং প্ল্যাটফর্ম ইউটিউবে দেশীয় বিজ্ঞাপনের হার দিনদিন বাড়ছে। ব্রাউজিংয়ে হরহামেশাই দেশীয় প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন চোখে পড়ে।

বেসিসের তথ্যমতে, ফেসবুক, গুগল, ইউটিউবে বিজ্ঞাপন বাবদ বছরে প্রায় দুই হাজার কোটি টাকা যাচ্ছে। সরকার উল্লেখযোগ্য রাজস্ব পাচ্ছে না। এ বিষয়ে ফেসবুক-গুগল থেকে ভ্যাট আদায়ে এনবিআরকে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহনের নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

আইনজীবিরা বলছেন, সিঙ্গাপুর ও বাংলাদেশের মধ্যে দ্বিপক্ষীয় বিনিয়োগ চুক্তি রয়েছে, এই চুক্তির আওতায় ফেসবুক-গুগল সিঙ্গাপুরে অফিস চালু করে বাংলাদেশে গ্রাহকদের সেবা দিচ্ছে। এক্ষেত্রে সিঙ্গাপুরে কর পরিশোধের অজুহাতে তারা বাংলাদেশকে কর ফাকি দিচ্ছে ।

ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তফা জব্বার বলেন, ফেসবুক অরিজিনালি ইউএস (যুক্তরাষ্ট্র) ভিত্তিক কোম্পানি। যদি সিঙ্গাপুরের কোম্পানি হতো তাহলে আমরা ওই যুক্তিটা মানতে পারতাম। এইসব খোঁড়া যুক্তি আমার মনে হয় না যে গ্রহণযোগ্য।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার এ এম মাসুম বলেন, ফেসবুক, গুগল, ইউটিউব যদি সিঙ্গাপুরে ভ্যাট দিয়ে থাকে, তাহলে আমাদের এখানেও ভ্যাট দিতে হবে।

এদিকে, বাংলাদেশে বিদেশী কম্পানীসমূহের কর ফাকির বিষয়ে সুনির্দিষ্ট কোন পদক্ষেপের কথা জানাতে পারেনি জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের দায়িত্বশীল কর্মকর্তা।