আর্মি স্কুল অব ফিজিক্যাল ট্রেনিং এন্ড স্পোর্টস-কে বিশ্বমানে গড়ে তোলা হবে সেনাবাহিনী প্রধান

মো. নজরুল ইসলাম, ময়মনসিংহ : সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল আজিজ আহমেদ, এসবিপি, বিএসপি, বিজিবিএম, পিবিজিএম, বিজিবিএমএস, পিএসসি, জি মঙ্গলবার ১৩ অক্টোবর ত্রিশাল সামরিক প্রশিক্ষণ এলাকায় আর্মি স্কুল অব ফিজিক্যাল ট্রেনিং এন্ড স্পোর্টস (এএসপিটিএস) এর নবনির্মিত কমপ্লেক্সের উদ্বোধন করেন।

নতুন জায়গায়, উপযুক্ত পরিবেশে এএসপিটিএস এর যাত্রা নতুন রূপে শুরু হয়েছে। ত্রিশালের প্রাকৃতিক মনোরম পরিবেশে সেনাবাহিনীর চাহিদা অনুযায়ী এএসপিটিএস-কে আন্তর্জাতিকমানের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তোলার জন্য সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহবান জানিয়েছেন সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল আজিজ আহমেদ।

এএসপিটিএস বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর শারীরিক ও ক্রীড়া বিষয়ক একমাত্র প্রশিক্ষণ প্রতিষ্ঠান। বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর শারীরিক প্রশিক্ষণ ও ক্রীড়া উন্নয়নের লক্ষ্যে এই প্রতিষ্ঠানটি গত ২৫ মে ১৯৭৯ তারিখে এএসপিটিএস রাজশাহী সেনানিবাসে প্রতিষ্ঠিত হয়। পরবর্তীতে ০৪ ডিসেম্বর ১৯৯৯ তারিখে এএসপিটিএস ঢাকা সেনানিবাসে আর্মি ষ্টেডিয়াম সংলগ্ন এলাকায় স্থানান্তরিত হয়। এএসপিটিএস প্রতিবছর শারীরিক ও ক্রীড়া বিষয়ক বিভিন্ন প্রকার প্রশিক্ষণ কার্যক্রম পরিচালনা করে থাকে। প্রতিষ্ঠানটিতে বাংলাদেশ সশস্ত্র বাহিনীর সদস্য ছাড়াও অন্যান্য আধাসামরিক বাহিনীর সদস্যদের শারীরিক ক্রীড়া বিষয়ক প্রশিক্ষণ প্রদানের মাধ্যমে দক্ষ প্রশিক্ষক তৈরী করে থাকে।

উল্লেখ্য, এএসপিটিএস দেশীয় প্রশিক্ষণার্থী ছাড়াও বিভিন্ন বন্ধু প্রতীম দেশ যেমনঃ শ্রীলংকা, সুদান, নেপাল ও প্যালেস্টাইন এর প্রশিক্ষণার্থীদের প্রশিক্ষণ প্রদান করেছে। ঢাকা সেনানিবাসে শারীরিক ও ক্রীড়া বিষয়ক প্রশিক্ষণ পরিচালনার জন্য পর্যাপ্ত জায়গা এবং প্রয়োজনীয় অবকাঠামোর অপ্রতুলতার জন্য একটি অত্যাধুনিক সুযোগ সুবিধা সম্পন্ন প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তোলার লক্ষ্যে এএসপিটিএস’কে একটি সুবিধাজনক এলাকায় স্থানান্তরের পরিকল্পনা করা হয়। এ প্রেক্ষিতে এএসপিটিএস ত্রিশাল সামরিক প্রশিক্ষণ এলাকায় স্থায়ীভাবে স্থানান্তরিত হয়ে কার্যক্রম শুরু করেছে।

উক্ত উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আর্মি ট্রেনিং অ্যান্ড ডকট্রিন কমান্ডের (আর্টডক) জেনারেল অফিসার কমান্ডিং (জিওসি) লেফটেন্যান্ট জেনারেল এস. এম. শফিউদ্দিন আহমেদ ছাড়াও উধর্¡তন সেনাকর্মকর্তাগণ ও বিভিন্ন পদবীর সেনাসদস্যগণ উপস্থিত ছিলেন।