সৌদি আরব পবিত্র হজ নিয়ে সিদ্ধান্ত নেয়নি

নিউজ ডেস্ক:   সৌদি আরবের মক্কায় ২০২০ সালের ৩০ জুলাই অনুষ্ঠিতব্য পবিত্র হজে বাংলাদেশসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে মুসল্লিদের অংশগ্রহণ বিষয়ে সৌদি সরকার গতকাল সোমবার (১৫ জুন) পর্যন্ত কোনো সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেনি। এ-সংক্রান্ত তাদের কোনো ধরনের সিদ্ধান্ত কূটনৈতিক চ্যানেলে বা দাপ্তরিকভাবে কোনো দেশকে জানায়নি।

মঙ্গলবার মক্কা বাংলাদেশ হজ মিশনের হজ কাউন্সিলর মাকসুদুর রহমান বলেন, ‘যতদূর জানা যায়, সৌদি সরকার অভ্যন্তরীণ ও আন্তর্জাতিক করোনা পরিস্থিতি তথা বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মতামত ইত্যাদির ওপর ভিত্তি করে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করবে। দেশটির সরকারের সিদ্ধান্ত পাওয়ামাত্রই সংশ্লিষ্ট সবাইকে অবহিত করা হবে।’

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের পরিস্থিতির কারণে পরবর্তী বিজ্ঞপ্তি না হওয়া পর্যন্ত সৌদি আরবে আন্তর্জাতিক রুটের ফ্লাইট চলাচল স্থগিত অব্যাহত থাকবে। আন্তর্জাতিক রুট পুনরায় চালু করার বিষয়ে গুজবের জবাব দিতে গিয়ে গত রোববার সৌদি আরবের রাষ্ট্রীয় উড়োজাহাজ সংস্থা সৌদিয়া এয়ারলাইনসের জারি করা বিজ্ঞপ্তিতে এ ঘোষণা দেওয়া হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, এ মুহূর্তে কেবল বিদেশে আটকেপড়া সৌদি নাগরিকদের দেশে ফিরিয়ে আনতে বিশেষ ফ্লাইট প্রবেশের অনুমতি রয়েছে। ‘আওদা’ (প্রত্যাবর্তন) প্রকল্পের অংশ হিসেবে অনুমোদিত আন্তর্জাতিক ফ্লাইটগুলো দিয়ে পরিষেবা দিচ্ছে সৌদিয়া এয়ারলাইনস।

দুই মাসের বেশি সময় স্থগিত থাকার পর গত ৩১ মে সৌদি আরবের অভ্যন্তরীণ রুটের ফ্লাইট চলাচল পুনরায় শুরু হলেও এখন পর্যন্ত আন্তর্জাতিক রুট বন্ধ রয়েছে।

সৌদিয়া এয়ারলাইনসের শিডিউল অনুযায়ী, মঙ্গলবার থেকে জেদ্দা ও হাওলের মধ্যে ফ্লাইটও শুরু হবে বলে আশা করা যাচ্ছে।

সৌদি আরবের ফ্লাইট চলাচল নিয়ন্ত্রক সিভিল এভিয়েশন জেনারেল অথরিটি (জিএসিএ) জানিয়েছে, বিশা, তাইফ, ইয়ানবু, হাফর আল-বাটিন এবং শরওরাহ বিমানবন্দরগুলোকেও আবারও চালু করার অনুমতি দেওয়া হয়েছে।