বীর মুক্তিযোদ্ধা শাহান আরা বেগমের মৃত্যুতে মসিক মেয়র টিটু’র গভীর শোক প্রকাশ

মো. নজরুল ইসলাম, ময়মনসিংহ : পার্বত্য চট্টগ্রাম শান্তিচুক্তি বাস্তবায়ন ও পরিবীক্ষণ কমিটির আহ্বায়ক, বরিশাল-১ আসনের সংসদ সদস্য, মন্ত্রী আবুল হাসানাত আবদুল্লাহর সহধর্মিনী ও বরিশাল সিটি করপোরেশনের মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহর মাতা, বরিশাল জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা, বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব ও সমাজসেবক এবং ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট কালরাতের প্রত্যক্ষদর্শী সাহান আরা বেগমের (৭১) মৃত্যুতে মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ ময়মনসিংহ মহানগর শাখার সহ-সভাপতি ইকরামুল হক টিটু। সোমবার (০৮ জুন) এক শোক বার্তায় তিনি মরহুমার রুহের মাগফিরাত কামনা করেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা ও সহমর্মিতা জ্ঞাপন করেন।
গত ৭জুন রাত সাড়ে ১১টার দিকে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ) হাসপাতালে বীর মুক্তিযোদ্ধা শাহান আরা শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। গত ৮জুন সকাল ৮টায় শাহান আরা আবদুল্লাহকে বরিশাল জেলা প্রশাসনে পক্ষ থেকে গার্ড অব অনার প্রদানের পর রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় মুসলিম কবরস্থানে দাফন করা হয়।

বেগম শাহান আরা আবদুল্লাহ বরিশাল জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি ও কেন্দ্রীয় মহিলা আওয়ামী লীগের সদস্য ছিলেন। তিনি বরিশালে রাজনীতিবিদ, সমাজসেবক ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব হিসেবে পরিচিত ছিলেন। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট ভয়াল কালরাতের প্রত্যক্ষদর্শী ছিলেন শাহান আরা।