ভারত থেকে চীনা নাগরিকদের দেশে ফিরতে বিজ্ঞপ্তি

নিউজ ডেস্ক:   করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে ভারতে আটকে পড়া নাগরিকদের দেশে ফেরানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে চীন। সোমবার একটি বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে নয়াদিল্লিতে অবস্থিত চীনা দূতাবাস ভারতে আটকে পড়া চীনাদের বিশেষ ফ্লাইটে টিকিট কাটার আহ্বান জানায়।

দূতাবাসের নিজস্ব ওয়েবসাইটে প্রকাশিত ওই বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ভারতে লকডাউনে আটকে পড়া শিক্ষার্থী, পর্যটক ও ব্যবসায়ীদের দেশে ফিরিয়ে নিতে চীন সরকার বিশেষ বিমানের ব্যবস্থা করেছে। তালিকায় রয়েছেন চীন থেকে ভারতে যোগ ব্যায়াম শিখতে আসা শিক্ষার্থী এবং বৌদ্ধ তীর্থযাত্রীরা।

আগ্রহী নাগরিকদের ২৭ মের মধ্যে এ বিষয়ে দূতাবাসের ওয়েবসাইটের মাধ্যমে নাম নথিভুক্ত করতে বলা হয়েছে। তবে জানানো হয়নি কবে ও কোথা থেকে চীনের উদ্দেশে বিশেষ বিমান রওনা হবে।

চীনের ম্যান্ডারিন ভাষায় লেখা নোটিশে আরও জানানো হয়, আগ্রহী চীনা নাগরিকদের বিমান ভাড়া এবং বাধ্যতামূলক ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিনের জন্য নির্ধারিত খরচ বহন করতে হবে।

তবে নোটিশে কড়াভাবে ইতিমধ্যে করোনা আক্রান্ত ব্যক্তিদের নাম নথিভুক্তিকরণের বিষয়ে নিষেধ করা হয়েছে বলে ভারতের সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, যাদের জ্বর, সর্দি-কাশি ও শ্বাসকষ্টের মতো উপসর্গ দেখা দিয়েছে, তাদের নাম নথিভুক্ত করা হবে না। এমনকি করোনা সংক্রমণজনিত সমস্যার কথা গোপন করা হলে এবং চীনে পৌঁছানোর পরে স্বাস্থ্য পরীক্ষায় তেমন কোনো উপসর্গ ধরা পড়লে সংশ্লিষ্ট নাগরিকের বিরুদ্ধে জননিরাপত্তা বিঘ্নিত করার জন্য যথাযোগ্য আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও সতর্ক করা হয়েছে।