বাগেরহাটে আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, নিহত ১

নিউজ ডেস্ক:    বাগেরহাটের মোল্লাহাট উপজেলায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষে একজনের মৃত্যু হয়েছে। এতে আহত হয়েছেন অন্তত ১৫ জন। বুধবার (২৭ মে) বিকেলে উপজেলার গাংনি ইউনিয়নের রহমতপাড়া এলাকায় এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

সংঘর্ষে নিহত ব্যক্তির নাম বাদশা সরদার (৪৫)। তিনি গাংনী রহমতপাড়া এলাকার সালেক সরদারের ছেলে। ওই সংঘর্ষে বাদশা গুরুতর আহত হলে খুলনা নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। আহতদের মোল্লাহাট ও খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ জানায়, গাংনী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম শাহিদ ও সাবেক ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আওয়ামী লীগ নেতা শেখ জাকির হোসেনের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে স্থানীয় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে বিরোধ চলে আসছে। এই বিরোধকে কেন্দ্র করে বিকাল ৪টার দিকে শাহিদ গ্রুপের লোকজন জাকির গ্রুপের লোকজনের ওপর দেশীয় অস্ত্র দিয়ে হামলা চালায়। এতে বাদশা সরদার গুরুত্বর আহত হয়। তাকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনি মারা যান।

মোল্লাহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কাজী গোলাম কবির জানান, ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ওই এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। মামলার প্রস্তুতি চলছে।