গোপালগঞ্জে ২১টি মধ্যবিত্ত পরিবারে খাবার পৌছে দিলো ছাত্রলীগ কর্মীরা

ঢাবি প্রতিনিধি

করোনা ভাইরাসে সমগ্র পৃথিবীর মত বাংলাদেশও এক সঙ্কটময় অবস্থার মধ্য দিয়ে সময় অতিক্রম করছে। এমন পরিস্থিতিতে দেশের প্রায় অধিকাংশ মানুষই কর্মহীন হয়ে পড়েছে। সবচেয়ে বিপাকে পড়েছে মধ্যবিত্ত ও নিম্ন অায়ের মানুষেরা।

এমন সময় নিজেদের উদ্যোগে অর্থ সংগ্রহ করে নিজ জেলা গোপালগঞ্জের চন্দ্রদিঘলিয়া গ্রাম এবং গোপালগঞ্জ পৌরসভার প্রায় ২১ টি মধ্যবিত্ত পরিবারের নিকট সাহায্য পৌছে দিয়েছে কয়েকজন ছাত্রলীগ কর্মী।তাদের সাহায্য সামগ্রীর মধ্যে ছিলো ৫ কেজি চাল,এক কেজি ডাল,এক লিটার তৈল এবং ২ কেজি আলু।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজয় একাত্তর হল শাখা ছাত্রলীগ কর্মী সাদিক হাসান মিয়া, বিশ্ববিদ্যালয়ের মাস্টার দা সূর্যসেন হল ছাত্রলীগ কর্মী ফয়সাল মোল্লা, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় শাখার কর্মী ইমন এবং সরকারি বঙ্গবন্ধু কলেজ ছাত্রলীগ শাখার কর্মী সাকিল ভূইয়া এবং নাফিসের সহযোগিতায় অর্থ সংগ্রহ করে এই কার্যক্রম পরিচালনা করেন তারা।

এই কর্যক্রম প্রসঙ্গ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় বিজয় একাত্তর হল শাখার ছাত্রলীগ কর্মী সাদিক হাসান মিয়া বলেন, করোনা প্রাদুর্ভাব এর কারনে সরকারের ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে। কিন্তু আমাদের চারপাশে এমন কিছু পরিবার রয়েছে যাদের জীবন ধারায় সমস্যার বিষয় টা ফুটে উঠে না এবং সাহায্যের জন্য মানুষের নিকট বলতে লজ্জাবোধ করে যার ফলে তারা এসকল ত্রাণ কার্যক্রম থেকে ছিটকে পড়ে তাই এমন কিছু পরিবারের দরজায় সাহায্য নিয়ে গিয়েছি।

সরকারি বঙ্গবন্ধু কলেজ ছাত্রলীগ শাখার কর্মী সাকিল ভূইয়া বলেন, মধ্যবিত্ত শ্রেনীর মানুষেরা বিভিন্ন সমস্যায় জর্জরিত থাকলে ও সামাজিক কারনে প্রকাশ করতে লজ্জাবোধ করে।একারণে আমাদের এ উদ্যোগ।

এ বিষয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মাস্টার দা সূর্যসেন হলের আরেক ছাত্রলীগ কর্মী ফয়সাল মোল্লা বলেন, মধ্যবিত্ত দের সামাজিক কারনে তারা ত্রাণ সামগ্রী থেকে বঞ্চিত হয় এ কারনে আমরা তাদের নিকট সাহায্য নিয়ে পৌছেছি।ভবিষ্যতে ও আমাদের এ কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে ইনশাআল্লাহ ।