জানাজায় লোকসমাগম: ওসির পর এএসপি প্রত্যাহার

নিউজ ডেস্ক:   বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের সিনিয়র নায়েব-ই-আমিরের জানাজায় ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইল উপজেলায় ব্যাপক জনসমাগমের ঘটনায় সরাইল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার (ওসি) পর সরাইল সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (এএসপি) মাসুদ রানাকেও প্রত্যাহার করা হয়েছে।

রোববার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পুলিশ সদর দপ্তরের সহকারী মহাপরিদর্শক (মিডিয়া) সোহেল রানা। তিনি জানান, ঘটনাটি তদন্তে রোববার তিন সদস্যের একটি কমিটি গঠন করেছে পুলিশ সদর দপ্তর। খবর ইউএনবির

শনিবার সকালে লকডাউন উপেক্ষা করেই অর্ধলক্ষাধিক মুসল্লি যোগ দেন বাংলাদেশ খেলাফত মজলিশের সিনিয়র নায়েবে মাওলানা জুবায়ের আহমদ আনসারী নামাজে জানাজায়। তার প্রতিষ্ঠিত ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলের জামিয়া রহমানিয়া বেড়তলা মাদরাসায় জানাজা অনুষ্ঠিত হয়।

মাদরাসার প্রান্তর ছাড়িয়ে জানাজার সারি দীর্ঘ হয় ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে। দেশ এবং জেলার শীর্ষ আলেমরা ছাড়াও মাদরাসাছাত্র এবং সাধারণ মানুষ যোগ দেন জানাজায়।

স্থানীয় পুলিশ-প্রশাসনের পক্ষ থেকে বলা হয়েছিল, পুলিশের পক্ষ থেকে চেষ্টা করা হয়েছিল। কিন্তু জানাজায় শরিক হওয়া থেকে মানুষকে নিভৃত করা সম্ভব হয়নি। তবে জানাজায় লোক সমাগম ঠেকাতে ব্যর্থ হওয়ায় সরাইল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ও‌সি) মো. সাহাদাত হোসেন টিটুকে শনিবার প্রত্যাহার করে চট্টগ্রাম রেঞ্জে সংযুক্ত করা হয়।