আত্মকোন্দলে জর্জরিত ‘মুক্তিযোদ্ধা মঞ্চ’

ওবায়দুর রহমান সোহান, ঢাবি প্রতিনিধি: শৃঙ্খলা ভঙ্গের দায়ে মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) সভাপতি আমিনুল ইসলাম বুলবুল ও সাধারণ সম্পাদক আল মামুনকে তাদের স্ব স্ব পদ থেকে অব্যাহতি প্রদান করা হয়েছে। গতকাল রাতে মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের আহবায়ক অধ্যাপক ড. আ ক ম জামাল উদ্দীন স্বাক্ষরীত এক প্রেস বিঞ্জপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে।

গতকাল ২০ অক্টোবর রবিবার দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের কেন্দ্রীয় সভাপতি আমিনুল ইসলাম বুলবুল ও সাধারণ সম্পাদক আল মামুনের নেতৃত্বে ছাত্রদলের নেতা-কর্মীদের উপর হামলা চালানো হয় । এতে ছাত্রদলের ৯ জন নেতাকর্মী আহত হয়। এরই পরিপ্রেক্ষিতে ইতোমধ্যে বহিষ্কৃত দুজনের বিরুদ্ধে গতকাল রাতে নতুন করে তাদের মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের পদ থেকে অব্যাহতির বিষয়টি প্রেস বিঞ্জপ্তি দিয়ে নিশ্চত করেছেন মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের আহবায়ক অধ্যাপক ড. আ ক ম জামাল উদ্দীন ।

প্রেস বিঞ্জপ্তিতে মুক্তিযুদ্ধ আহবায়ক বলেন, গত ১০ই অক্টোবর বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হত্যাকান্ডের প্রতিবাদে অনাকাক্সিক্ষত ঘটনার ঘটার আশংকায় যুবলীগ চেয়্যারম্যান ওমর ফারুখ চৌধুরীর কুশপুত্তলিকা দাহ কর্মসূচী পালন না করার জন্য মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের আহবায়কের পক্ষ থেকে নিষেধ করা হয় । কিন্তু আহবায়কের কথা অমান্য করে তারা কুশপুুত্তলিকা দাহ করে । ফলে দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের দায়ে তাদের বিশ্ববিদ্যায় কমিটি থেকে অব্যাহতি প্রদান করা হয়।

তিনি আরো বলেন, তাদের অব্যাহতি প্রদানের পরও তারা মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের নাম ব্যবহার করে ঢাবিতে নানা ধরনের অপকর্ম চালিয়ে যাচ্ছে। গতকাল দুপুরে তারা ঢাবির মধুর ক্যান্টিনে তারা ছাত্রদলের নেতাকর্মীদের উপর হামলা করে একটি অপ্রিতীকর ঘটনার জন্ম দেয়। কিন্তু তাদের শৃঙ্খলা পরিপন্থী কর্মকান্ডের সাথে গতবছর শাহবাগে গড়ে ওঠা মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের কোন সমৃক্ততা নেই।

তিনি আরো বলেন, ইতোমধ্যে গত ১০ই অক্টোবর মামুন বুলবুলকে মু্িক্তযুদ্ধ মঞ্চ থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে । তাই মামুন ও বুলবুলের সাথে মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের কোন সম্পর্ক বা তাদের দ্বারা সংগঠিত অপ্রীতিকর ঘটনার কোন সম্পর্ক নেই। তাদের বহিস্কার করার কারণে তার প্রতিহিংসা পরায়ণ হয়ে তাদেও নিজেদেরকে মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের সভাপতি/সাধারণ সম্পাদক হিসেবে পরিচয় দিয়ে সংগঠনের ভাবমূর্তি নষ্ট এবং নিজেদের হাসির খোরাকে পরিণত করছে।

এবিষয়ে জানার জন্য মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) সভাপতি আমিনুল ইসলাম বুলবুল ও সাধারণ সম্পাদক আল মামুনের সাথে একধিকবার মুঠোফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করলেও তারা রিসিভ করেন নি।