চাঁদাবাজির ঘটনায় নিজের অবস্থান প্রকাশ করলেন ঢাবি ছাত্রলীগ নেতা

ওবায়দুর রহমান সোহান, (ঢাবি) প্রতিনিধি : ২৮ আগস্ট শাহাবাগে ব্যাবসায়ীকে মারধর এবং চাঁদাবাজির ঘটনায় বিভিন্ন অনলাইন পোর্টালে প্রকাশিত হওয়া সংবাদের বিরুদ্ধে নিজের অবস্থানের বিবৃতি দিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতি (ডুজা) কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করেন ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নাট্য ও বিতর্ক সম্পাদক জুয়েল মোল্লা।

বুধবার, (২৮ আগস্ট) শাহবাগ ফুল মার্কেট মালিক সমিতির সাধারন সম্পাদক শামীম অভিযোগ করে বলেন, ”ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নাট্য ও বিতর্ক সম্পাদক জুয়েল মোল্লা দীর্ঘদিন যাবত আমার নিকট চাদা দাবি করছে। মেট্রোরেলের কারণে ব্যবসার খারাপ অবস্থা তাই চাদা দিতে পারিনি। চাদা না দেওয়ায়, বিএনপি জামাতের কাছে তাদের দলের (আওয়ামী লীগ) তথ্য পাচার এবং বিএনপি জামাতের লোক বলে মিথ্যা অভিযোগ করে আজকে সন্ধ্যায় চার পাচ জন মারধর করেছে।” এ ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে গতকাল রাতে বেশ কয়েকটি দৈনিক এবং অনলাইন নিউজ পোর্টালে প্রকাশিত হয়।

এই হীনকর ঘটনায় নিজের অবস্থান সম্পর্কে জানাতে আজ ৪ টায় ডুজা কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করেন ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নাট্য ও বিতর্ক সম্পাদক জুয়েল মোল্লা।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ফুল দোকানী বিএনপি-জামায়াতের প্রোগ্রামগুলোতে ফুল দেয় এবং বিভিন্ন ভাবে আমাদের তথ্য তাদের কাছে পাস করে। আমি আমার আদর্শগত যায়গা থেকে এ ব্যাপরে কথা বলতেই গিয়েছিলাম।

তিনি আরোও বলেন, তাকে মারধরতো দুরের কথা, তার গায়ে কেউ একটা টোকাও দেয়া হয়নি। চাদাবাজী এবং মারধরের এসব ঘটনা হয়তো তাকে দিয়ে কোন স্বার্থাণ্বেসী গোষ্ঠী বা মহল দলের ইমেজ খারাপ এবং আমাকে হেয় প্রতিপন্ন করার জন্যই উদ্দেশ্য প্রনদিতভাব এমন জঘন্য কাজ করাচ্ছে।

উল্লেখ্য, জুয়েল মোল্লা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের স্যার এএফ রহমান হল ও নৃতত্ত্ব বিভাগের শিক্ষার্থী এবং গোপালগঞ্জ জেলার বাসিন্দা।

ঢাকানিউজ২৪ডটকম/জাহিদ।