ছাত্রী উত্যক্তের জেরে এলাকা রণক্ষেত্র

নিউজ ডেস্ক :   ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে ছাত্রী উত্যক্তের জেরে দুই পক্ষের সংঘর্ষে পুলিশসহ ৩০ জন আহত হয়েছেন। বুধবার (১৮ জুন) সকালে উপজেলার সৈয়দটুলা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, সরাইল সদরে প্রাইভেট পড়া শেষে বাড়ি ফিরছিল সৈয়দটুলা গ্রামের নয়াপাড়া এলাকার দুইজন ছাত্রী। পথে ফকিরপাড়ার আবদুল্লাহ, মুয়াজ্জিনসহ কয়েকজন যুবক তাদের উত্যক্ত করে। খবর পেয়ে নোয়াপাড়ার লোকজন ফকিরপাড়ায় জিজ্ঞেস করত আসে। দুই পক্ষের কথা কাটাকাটি ও পরে মারপিটের ঘটনা ঘটে। এতে উভয় পক্ষের লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। মুহূর্তেই পুরো এলাকা রণক্ষেত্রে পরিণত হয়।

খবর পেয়ে সরাইল থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে লাঠিচার্জ ও ২০ রাউন্ড শর্টগানের গুলি ছুঁড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ সময় সরাইল থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) নূরুল হক, এসআই রফিক, কনস্টেবল নাজমুল, রুকন উদ্দিন, বেলাল, গ্রামবাসী আশিক (২৫), ফয়সল (১৮), আবদুল্লা (২৬), মোস্তফা (২০), জুয়েল (২৪), মোফাচ্ছেরসহ (২০) ৩০ জন আহত হন। আহতদের ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতাল ও সরাইল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি ও চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

সরাইল থানার অফিসার ইনচার্জ মফিজ উদ্দিন ভূঞা বলেন, এলাকায় পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। এখন পর্যন্ত কোনো মামলা হয়নি।