কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী হলফনামায় যা বললেন….

নিউজ ডেস্কঃ   ভারতীয় আসন্ন লোকসভার নির্বাচনের ভোট গ্রহণ শুরু হচ্ছে আগামী ১১ এপ্রিল। ৫৪৩টি আসনের জন্য সাত দফায় ভোট হবে। ভোট গণনা আগামী ২৩ মে।

ভারতীয় গণমাধ্যম জি নিউজের খবরে বলা হয়, বৃহস্পতিবার কেরলের ওয়াইনাড থেকে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। এদিন তার দেওয়া হলফনামা অনুযায়ী তার ব্যক্তিগত মালিকানায় কোনো গাড়ি নেই।

রাহুল তার হলফনামায় লিখেন, গত পাঁচ বছরে তার সম্পত্তি বেড়েছে সাড়ে ছয় কোটি টাকার কাছাকাছি। এবার দেওয়া এফিডেভিট অনুযায়ী রাহুল গান্ধীর কোনো গাড়ি নেই। হাতে রয়েছে মাত্র ৪০ হাজার টাকা। বিভিন্ন ব্যাঙ্ক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানে থেকে ঋণ করেছেন ৭২ লাখ টাকা। অস্থাবর সম্পত্তির পরিমাণ পাঁচ কোটি ৮০ লাখ ৫৮ হাজার ৭৯৯ টাকার। স্থাবর সম্পত্তি রয়েছে ১০ কোটি আট লাখ ১৮ হাজার ২৮৪ টাকার। সব মিলিয়ে মোট সম্পত্তির পরিমাণ ১৫ কোটি ৮৮ লাখ ৭৭ হাজার ৮৩ টাকার।

এর আগে ২০১৪ সালে দেওয়া হলফনামা অনুযায়ী রাহুল গান্ধীর সম্পত্তি ছিল নয় কোটি ৪০ লাখ। অর্থাৎ পাঁচ বছরকে সম্পত্তি বেড়েছে ৬.৪৮ কোটি টাকার।

এবার উত্তরপ্রদেশের আমেঠির পাশাপাশি কেরলের ওয়াইনাড থেকেও লড়াই করছেন রাহুল গান্ধী। হলফনামায় তিনি জানিয়েছেন, তার বিরুদ্ধে পাঁচটি মামলা রয়েছে। এর মধ্যে দুটি মামলা রয়েছে মহারাষ্ট্রে, একটি করে মামলা রয়েছে ঝাড়খণ্ড, অসম ও দিল্লিতে।

এফিডেভিট অনুযায়ী রাহুলের বিভিন্ন ব্যাঙ্কে জমা রয়েছে ১৭ লাখ ৯৩ হাজার টাকা। শেয়ার ও বন্ডে রয়েছে পাঁচ কোটি ১৯ লাখ টাকা। সোনার গহনা রয়েছে ৩৩৩ দশমিক ৩ গ্রাম।

রাহুল গান্ধী জানিয়েছেন, দিল্লির সুলতানপুর গ্রামে উত্তরাধিকার সূত্রে তিনি কিছু সম্পত্তির মালিক। গুরুগ্রামে তার দুটো অফিস রয়েছে।

২০১৭-১৮ সালে রাহুলের আয় হয়েছে এক কোটি ১১ লাখ ৮৫ হাজার ৫৭০ টাকা। শিক্ষাগত যোগ্যতা নিয়ে রাহুল জানিয়েছেন, তিনি ডেভলপমেন্ট স্টাডিজে এমফিল করেছেন কেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রিনিটি কলেজ থেকে।