উত্তর কোরিয়ার কোন অর্থনৈতিক ভবিষ্যৎ নেই: ট্রাম্প

নিউজ ডেস্ক:   মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, পারমাণবিক অস্ত্র থাকলে উত্তর কোরিয়ার কোন অর্থনৈতিক ভবিষ্যৎ নেই। শনিবার ট্রাম্প এ কথা বলেন। খবর রয়টার্সের।

ওয়াশিংটনে এক সম্মেলনে ট্রাম্প বলেন, উত্তর কোরিয়া অবিশ্বাস্য, উজ্জ্বল অর্থনৈতিক ভবিষ্যৎ আছে, তারা যদি একটি চুক্তি সম্পন্ন করে, কিন্তু পারমাণবিক অস্ত্র থাকলে তাদের অর্থনৈতিক কোন ভবিষ্যৎ নাই।

এসময় তিনি আরও বলেন, উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক ‘খুব শক্তিশালী’ মনে হচ্ছে।দিন কয়েক আগেও ট্রাম্প মন্তব্য করেন, পরমাণু অস্ত্র কর্মসূচি বাতিল করতে সম্মত হলে উত্তর কোরিয়ার ভবিষ্যৎ অত্যন্ত উজ্জ্বল।

গত ২৭-২৮ ফেব্রুয়ারি ভিয়েতনামের রাজধানী হ্যানয়ে বৈঠকে বসেন উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উন এবং মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। বৈঠকে কোন ধরণের চুক্তি সম্পন্ন হয়নি বলে সংবাদ মাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে।

বৈঠকে কিমের দাবি ছিল এখনই তার দেশের উপর বলবত্ থাকা নিষেধাজ্ঞা তুলে নিতে হবে যুক্তরাষ্ট্রকে। তবে যুক্তরাষ্ট্র চায় আরো কিছুদিন দেশটিকে নজরে রাখতে এবং নিষেধাজ্ঞা তোলার আগে পরমাণু সংক্রান্ত সব কর্মসূচি বাতিলের নিশ্চয়তা পেতে।

তবে হোয়াইট হাউস জানায়, এবার কোনো চুক্তিতে পৌঁছানো সম্ভব হয়নি। তবে উভয় পক্ষই ভবিষ্যতে আরও বৈঠকের দিকে তাকিয়ে আছে।

কিম বলেছেন, হ্যানয়ে তার উপস্থিতিই প্রমাণ করে তিনি নিরস্ত্রীকরণে ইচ্ছুক। যদি আমি না চাইতাম, আমি কখনোই এখানে আসতাম না।