পশ্চিমবঙ্গকে বাংলাদেশ তৈরি করছে তৃণমূল: বিজেপি

নিউজ ডেস্ক:  বিরোধীদের কর্মসূচীতে হামলা চালিয়ে বাংলাকে বাংলাদেশ বানানোর চেষ্টা করছে তৃণমূল সরকার। ভারতের ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবকে পাশে বসিয়ে এমন অভিযোগ করলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ।

দিলীপ ঘোষ অভিযোগ করে বলেন, কাঁথিতে বিজেপি কর্মীদের ওপর হামলা চালিয়েছে শাসক দল তৃণমূল। নৈতিক পরাজয় হয়েছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকারের। রাজনৈতিকভাবে বিজেপিকে ভয় পেয়েই শারীরিক শক্তি প্রয়োগ করছে তৃণমূল।

আসন্ন নির্বাচনকে সামনে রেখে মঙ্গলবার মঙ্গলবার ভারতের পশ্চিমবঙ্গের পশ্চিম মেদিনীপুরের কাঁথিতে জনসভা ছিল বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ’র। সেই সভা শেষ হওয়ার পর তুমুল সংঘর্ষ বেধে যায় বিজেপি আর তৃণমূল কংগ্রেসের কর্মীদের মধ্যে।

পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যে ক্ষমতাসীনদের অভিযোগ, বিজেপি তাদের দলীয় কার্যালয়ে ভাংচুর চালিয়েছে। অন্যদিকে অমিত শাহ’র সভাতে আসা বিজেপি কর্মীদের কয়েকটি বাইক ও বাস তৃণমূল কর্মীরা ভাংচুর করে জ্বালিয়ে দেয় বলে পাল্টা অভিযোগ করেছে বিজেপি।

সন্ধ্যার পর থেকে রণক্ষেত্রে রূপ নেয় মেদিনিপুরের কাঁথি বাইপাস ও সংলগ্ন এলাকা। রাত পর্যন্ত যত্রতত্র ভাঙচুর করা বাস, পোড়া বাইক পড়ে থাকতে দেখা যায়। নামানো হয় র্যাপিড অ্যাকশন ফোর্স- র্যাফ ও কমব্যাট ফোর্স।

বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের অভিযোগ, দলের সর্বভারতীয় সভাপতির সব সভাতেই প্রচুর মানুষের ভিড় হচ্ছে।লোকসভা ভোটে লড়াই বিজেপি বনাম তৃণমূল। এই অবস্থায় রাজনৈতিরভাবে না পেরে হামলা চালিয়ে বিরোধীদের ভয় পাওয়ানোর চেষ্টা করছে রাজ্যের শাসক দল।

সূত্র: ইত্তেফাক