জামিন চেয়ে হাইকোর্টে খালেদা জিয়ার আবেদন

নিউজ ডেস্ক:  কুমিল্লায় বাসে অগ্নিসংযোগের ঘটনায় দায়েরকৃত হত্যা মামলায় জামিন চেয়ে হাইকোর্টে আবেদন করেছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া।

বিচারপতি মো. রেজাউল হক ও বিচারপতি জাফর আহমেদের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চে  সোমবার এ আবেদনের ওপর শুনানি হতে পারে। আবেদন দাখিল প্রসঙ্গে খালেদা জিয়ার আইনজীবী বিএনপির আইন বিষয়ক সম্পাদক ব্যারিস্টার কায়সার কামাল বলেন, কুমিল্লার নাশকতার এই মামলাটিতে রাষ্ট্রপক্ষের আবেদনের প্রেক্ষিতে খালেদা জিয়ার জামিন শুনানি চার বার পিছিয়েছে নিন্ম আদালত। আমরা সময়ক্ষেপণের বিষয়টি উল্লেখ করে হাইকোর্টে তার জামিন চেয়ে আবেদন করেছি।

২০১৫ সালের ৩ ফেব্রুয়ারি বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের ডাকা অবরোধ ও হরতাল চলাকালে কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে একটি বাসে অগ্নিসংযোগ করা হয়। ওই ঘটনায় আটজন যাত্রী নিহত ও অগ্নিদগ্ধ হয় বেশ কয়েকজন। পরে খালেদা জিয়াকে হুকুমের আসামি করে ৬৯ জন দলীয় নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করে পুলিশ। এ মামলায় গত ১৬ জানুয়ারি জামিন চেয়ে কুমিল্লার জেলা ও দায়রা জজ আদালতে আবেদন করেন খালেদা জিয়া। কিন্তু রাষ্ট্রপক্ষের সময় আবেদনের প্রেক্ষিতে ওই জামিন আবেদনের শুনানি ৪ ফেব্রুয়ারি রাখা হয়। এ অবস্থায় হাইকোর্টে জামিন চান খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা।

প্রসঙ্গত, দু’টি দুর্নীতির মামলায় ১৭ বছরের দণ্ডপ্রাপ্ত হয়ে খালেদা জিয়া কারাভোগ করছেন। বর্তমানে তিনি ঢাকার পুরাতন কেন্দ্রীয় কারাগারের একটি ভবনে বন্দি রয়েছেন।