বড় উত্থান শেয়ারবাজারে

সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস রোববার দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) এবং অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সবকটি মূল্যসূচকের বড় উত্থান হয়েছে। সেই সঙ্গে বেড়েছে লেনদেনের পরিমাণ। মূল্যসূচক ও লেনদেনের পাশাপাশি এদিন বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানেরই শেয়ার ও ইউনিটের দাম বেড়েছে।

আজ ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নেয়া ২২৮টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম আগের দিনের (বৃহস্পতিবার) তুলনায় বেড়েছে। বিপরীতে দাম কমার তালিকায় স্থান করে নিয়েছে ৭৬টি প্রতিষ্ঠান। আর অপরিবর্তিত রয়েছে ৪০টির দাম।

অপর দুটি মূল্যসূচকের মধ্যে ডিএসই শরিয়াহ্ সূচক আগের কার্যদিবসের তুলনায় ১১ পয়েন্ট বেড়ে ১ হাজার ৩২৯ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। আর ডিএসই-৩০ আগের কার্যদিবসের তুলনায় ১৮ পয়েন্ট বেড়ে ২ হাজার ৩০ পয়েন্টে অবস্থান করছে।

রোববার ডিএসইতে মোট ৯৭৩ কোটি ৯৪ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। আগের কার্যদিবসে লেনদেন হয়েছিল ৮৯৭ কোটি ৫৭ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট। সে হিসেবে আগের কার্যদিবসের তুলনায় এদিন ৭৬ কোটি ৩৭ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট বেশি লেনদেন হয়েছে।

টাকার অংকে রোববার ডিএসইতে সব থেকে বেশি লেনদেন হয়েছে বিবিএস কেবলসের শেয়ার। এদিন কোম্পানিটির মোট ৪২ কোটি ৭৬ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। দ্বিতীয় স্থানে থাকা খুলনা পাওয়ারের শেয়ার লেনদেন হয়েছে ৩৯ কোটি ৬৮ লাখ টাকার। আর ১৬ কোটি ৬৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেনে তৃতীয় স্থানে রয়েছে অলিম্পিক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড।

লেনদেনে এরপর রয়েছে যথাক্রমে – সিভিও পেট্রো কেমিক্যালস, ঢাকা ব্যাংক, সামিট পাওয়ার, সায়হাম কটন, ইউনাইটেড পাওয়ার জেনারেশন, মেঘনা লাইফ ইন্স্যুরেন্স এবং ব্র্যাক ব্যাংক।

অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের সার্বিক মূল্যসূচক সিএসসিএক্স ১০৯ পয়েন্ট বেড়ে ১০ হাজার ৮৩৬ পয়েন্টে অবস্থান করছে। বাজারটিতে রোববার মোট ৬৫ কোটি ২৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। লেনদেন হওয়া ২৭৪টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের মধ্যে ১৭৯টির শেয়ারের দাম বেড়েছে। বিপরীতে দাম কমেছে ৭০টির। আর অপরিবর্তিত রয়েছে ২৫টির দাম।