তারেক বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশনের কঠোর ব্যবস্থা: নাসিম

নিউজ ডেস্ক:  আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য এবং স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম আচরণবিধি লঙ্ঘনের জন্য বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারপার্সন তারেক রহমানের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নিতে নির্বাচন কমিশনের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, ‘তারেক রহমানের বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশনের কঠোর ব্যবস্থা নেয়া উচিত। কারণ নির্বাচন কমিশনের বিধি লংঘন করে কেউ যদি কোন বক্তব্য দেয়, আচরণবিধি লংঘন করে, তাহলে সে যেই হোক তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া উচিত। নির্বাচন কমিশনের প্রতি আমাদের আহবান থাকবে তারা যেন কঠোর ব্যবস্থা নেয়।’

সোমবার দুপুরে শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ডিজিটাল চিকিৎসা সেবা কার্যক্রমের উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এ সব কথা বলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড বাদ দিয়ে বিএনপি ও জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট শেষ পর্যন্ত মাঠে থাকবে বলে আশা প্রকাশ করে মোহাম্মদ নাসিম বলেন, জাতীয় ঐক্যফ্রন্টসহ বিভিন্ন রাজনৈতি দল সংবিধান অনুযায়ী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অধীনে নির্বাচনে এসেছে এটা স্বস্তির খবর, ভাল খবর। আশা করি, তারা শেষ পর্যন্ত নির্বাচনে থাকবে এবং জনগণের রায় নেয়ার জন্য প্রস্তুত থাকবেন। আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন সুুষ্ঠু নিরপেক্ষ হবে জানিয়ে তিনি বলেন, নির্বাচন সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হবে এটা নিশ্চিত। কারচুপির কোন প্রশ্নই ওঠে না। নির্বাচন কমিশনওতো বলেছে নির্বাচন সুষ্ঠু হবে।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শ ধারণ করার কথা বলে যারা খুনিদের সঙ্গে হাত মিলিয়েছেন তারা রাজনৈতিকভাবে ভন্ড উল্লেখ করে নাসিম বলেন, যারা এতোদিন বঙ্গবন্ধুর কথা বলে মুজিব কোট পড়ে এখন ধানের শীষে যোগ দিয়েছে তারা ভন্ড ও প্রতারক। আগামী ৩০ ডিসেম্বর তাদের বিরুদ্ধে জনগণ রায় দিয়ে বিচার করে দিবে। শুধু ভোটের জন্য খুনিদের সাথে হাত মিলিয়েছে এই সকল প্রতারকের দল।