পাকিস্তানে ভারতীয় টিভি চ্যানেলের সম্প্রচার বন্ধ

নিউজ ডেস্ক:   পাকিস্তানে সব ভারতীয় টেলিভিশন চ্যানেলের সম্প্রচারে আবারো নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে দেশটির সুপ্রিম কোর্ট। এ বিষয়ে দেশটির নিম্ন আদালতের দেওয়া এক আদেশ বাতিল করে সুপ্রিম কোর্ট নতুন করে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে বলে বিবিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

পাকিস্তানের প্রধান বিচারপতি সাকিব নিসার বলেন, পাকিস্তানের মধ্য দিয়েও প্রবাহিত হচ্ছে এমন নদীগুলোতে যেহেতু ভারত বাঁধ দিচ্ছে তাই এই নিষেধাজ্ঞা ন্যায়সঙ্গত।

তিনি বলেন, ‘পাকিস্তানে প্রবাহিত নদীগুলোর পানি আটকে দিচ্ছে ভারত। তাহলে আমরা কেন তাদের টেলিভিশন চ্যানেলগুলো বন্ধ করবো না?’

পাকিস্তানের অভিযোগ, ভারত এই বাঁধগুলোকে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে অস্ত্র হিসেবে ব্যবহার করছে। যদিও এই অভিযোগ অস্বীকার করেছে ‌ভারত।

ভারতের সিনেমা ও টেলিভিশন চ্যানেলগুলো পাকিস্তানে বেশ জনপ্রিয়। তবে বিভিন্ন বিষয়ে বিরোধের জের ধরে এর আগেও বেশ কয়েকবার ভারতীয় সিনেমা ও টেলিভিশন চ্যানেল পাকিস্তানে নিষিদ্ধ করা হয়।

১৯৬৫ সালে ভারত-পাকিস্তান যুদ্ধের পর প্রথমবারের মতো পাকিস্তানে ভারতীয় সিনেমার প্রদর্শনীতে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়। ২০০৮ সালে সেই নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার হলেও বিভিন্ন পরিস্থিতিতে আবারও নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয়।

সর্বশেষ ২০১৬ সালে কাশ্মীর ইস্যুকে কেন্দ্র করে পাকিস্তানে সব ভারতীয় টেলিভিশন ও রেডিও চ্যানেল নিষিদ্ধা করা হয়। পরে লাহোরের একটি আদালত সেই নিষেধাজ্ঞা বাতিল করলেও দেশটির সুপ্রিম কোর্ট আবারও নিষেধাজ্ঞা আরোপ করলো।