সাংবাদিক নিখোঁজে সৌদি-তুরস্ক কূটনৈতিক উত্তেজনা

সুমন দত্ত : সৌদি আরবের সঙ্গে কূটনৈতিক টানাপড়েনে জড়িয়ে যাচ্ছে তুরস্ক। সাংবাদিক জামাল খাসোগিকে নিখোঁজ হয়ে যাওয়া দুদেশের সম্পর্কে এই উত্তেজনা।
 
তুরস্কের দাবি সাংবাদিক জামাল খাসোগিকে ইস্তাম্বুলের সৌদি দূতাবাসে ডেকে নিয়ে তাকে নির্যাতন করা হয়। এরপর ভাড়াটে খুনি দিয়ে তাকে দূতাবাসের ভেতরই হত্যা করা হয়।এরপর লাশ কেটে টুকরা টুকরা করা হয়। পুরো ঘটনার অডিও ভিডিও তুরস্কের হাতে রয়েছে বলে দাবি, এমন কথা দেশটির আনাদুলো পত্রিকা জানিয়েছে। এদিকে সৌদি আরবের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয় এই দাবি নাকচ করে দিয়েছে। খাসোগি নিখোঁজে সৌদি আরবের কোনো ভূমিকা নেই। তাদের মতে দূতাবাস থেকে বের হয়ে গিয়েই খাসোগি  নিখোঁজ হয়েছেন। তুরস্ক সেটা স্বীকার করছে না। তুরস্ক একটি ভিডিও প্রকাশ করেছে যেখানে খাসোগি  সৌদি দূতবাসে ঢুকছেন সেটা দেখানো হয়।
 
প্রসঙ্গত, গত ২ অক্টোবর সাংবাদিক জামাল খাসোগি সৌদি দূতাবাসে যান। তুরস্কের এক নারীকে বিয়ে করতে কাগজপত্র সংগ্রহ করতে তিনি সেখানে যান। এটা তার চর্তুথ বিয়ে। তিনি সৌদি নাগরিক এজন্য তাকে পূর্বের বিয়ের তালাকের কাগজপত্র জমা দিয়ে নতুন বিয়ের জন্য কাগজপত্র সংগ্রহ করতে যান। জামাল খাসোগি ছিলেন ওয়াশিংটন পোস্টের কন্ট্রিবিউটর লেখক। বর্তমান সৌদি রাজ পরিবারের কট্টর সমালোচক। সৌদি আরবের ইয়েমেন যুদ্ধ নিয়ে তিনি একাধিক সমালোচনামূলক কলাম লিখেছেন। তিনি নতুন যুবরাজ মহম্মদ বিন সালমানের অনেক বিষয়ের সমালোচনা করতেন।
 
খাসোগি নিখোঁজের তদন্ত করতে সৌদি আরবের একটি প্রতিনিধি দল এরই মধ্যে তুরস্ক রওয়ানা হয়েছে। অন্যদিকে তুরস্ক কর্তৃপক্ষকে ইস্তাম্বুলের সৌদি দূতাবাসে প্রবেশের অনুমতি দিয়েছে সৌদি সরকার। এই ঘটনার তদন্তে তুরস্ক সৌদি আরবের সঙ্গে যৌথ তদন্তের আহবান জানালে সৌদি আরব তাতে সায় দিয়েছে বলে জানায় বার্তা সংস্থা স্পুুটনিক।
 
খাসোগি নিখোঁজের বিষয়ে প্রকৃত সত্য জানতে চায় ফ্রান্স। দেশটির প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোন এ কথা সাংবাদিকদের জানিয়েছেন। এদিকে মার্কিন গণমাধ্যম খাসোগির নিখোঁজের প্রতিবাদে সৌদি আরবে হতে যাওয়া আসন্ন সম্মেলন স্থগিত করেছে। মার্কিন কয়েকটি কোম্পানি এই ঘটনায় সৌদি সরকারের সঙ্গে সম্পর্ক ছেদ করেছে যার মধ্যে রিচার্ড বেনসনের ভার্জিন কোম্পানি রয়েছে। তাছাড়া মার্কিন সরকারের বেশ কয়েকজন কংগ্রেসম্যান প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে এ বিষয়ে খোজ খবর নেয়ার জন্য সৌদি সরকারকে চাপ প্রয়োগের কথা বলেছেন। 
 
সূত্র: স্পুটনিক,বিবিসি,আরটি,আল-জাজিরা