বিএনপি নৈরাজ্য সৃষ্টির চেষ্টা করছে : মোহাম্মদ নাসিম

নিউজ ডেস্কঃ  আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য, কেন্দ্রীয় ১৪ দলের মুখপাত্র এবং স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, কেন্দ্রীয় ১৪ দল ঘোষিত সমাবেশের দিন বিএনপি তাদের কর্মসূচি দিয়েছে। আসলে বিএনপি পায়ে পা লাগিয়ে দেশে নৈরাজ্য সৃষ্টির চেষ্টা করছে।

তিনি বলেন, গত কয়েক দিন আগে রাজধানীর মহানগর নাট্যমঞ্চে আওয়ামী লীগসহ ১৪ দলের সমাবেশ করার ঘোষণা দেয়া হয়েছে। কিন্তু বিএনপি সংঘাত সৃষ্টির জন্যই তাদের পূর্ব নির্ধারিত সমাবেশের তারিখ দুইদিন বাড়িয়ে শনিবার করেছে। এটা কার উস্কানিতে হয়েছে তা খতিয়ে দেখা দরকার।

মোহাম্মদ নাসিম বৃহস্পতিবার কক্সবাজারের একটি হোটেলে অনুষ্ঠিত ‘ন্যাশনাল হোমিওপ্যাথিক কংগ্রেসে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এই আহবান জানান। ডিএইচএমএস ডক্টরস এসোসিয়েশন, কেন্দ্রীয় কমিটি এই কংগ্রেসের আয়োজন করে। এসোসিয়েশনের সভাপতি ডা. মো. ইফতেখার উদ্দিনের সভাপতিত্বে সম্মেলনে কক্সবাজার সদর আসনের সংসদ সদস্য সাইমন সারোয়ার কমল, ঢাকা মহানগর (দক্ষিণ) আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ, বাংলাদেশ হোমিওপ্যাথিক বোর্ডের চেয়ারম্যান ডা. দিলীপ কুমার রায়, রেজিস্ট্রার ডা. জাহাঙ্গীর আলম প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

সমাবেশের তারিখ পিছিয়ে দিতে বিএনপির প্রতি আহবান জানিয়ে মোহাম্মদ নাসিম বলেন, উদ্দেশ্যপ্রণোদিত হয়ে অস্থিরতা সৃষ্টি করার চেষ্টা করবেন না। নির্বাচনে আসুন। খালি মাঠ চাই না, খেলে জিততে চাই। ফাউল করলে নির্বাচনে লাল কার্ড দেখাবে দেশের জনগণ।

বিএনপিকে আগামী নির্বাচনে অংশ গ্রহণের আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, সাংবিধানিকভাবে ক্ষমতায় যেতে হলে নির্বাচনের বিকল্প নেই। নির্বাচনের বিকল্প নির্বাচন। নির্বাচনে জনগনের রায় মেনে নেবো। নির্বাচন হবে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ। নির্বাচনের সময় প্রশাসনসহ সকল সরকারি কর্মকর্তা কর্মচারি নির্বাচন কমিশনের নিয়ন্ত্রণে চলে যাবে। স্বাধীনভাবে কাজ করবে নির্বাচন কমিশন।

বিকেলে কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালের নবপ্রতিষ্ঠিত করোনারী কেয়ার ইউনিট (সিসিইউ) উদ্বোধন করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। পরে ঘুরে দেখেন সিসিইউ এবং আইসিইউ চিকিৎসা কার্যক্রম।