সড়ক দূর্ঘটনায় নিহত ১

কেন্দুয়া, নেত্রকোনা প্রতিনিধি: সন্তানের চিকিৎসা করতে গিয়ে লাশ হয়ে বাড়ি ফিরল কেন্দুয়া উপজেলার চারিতলা গ্রামের আপতু মিয়ার ছেলে রুবেল মিয়া। তার সঙ্গে লাশ হলো রুবেলের শিশু ছেলে শাহরিয়ার এবং তার ভগ্নিপতি মোজাফপুর গ্রামের রফিকুল ইসলামের।

সড়ক দূর্ঘটনায় রোববার দুপুরে কিশোরগঞ্জ এলাকায় তারা নিহত হলে তাদের লাশ স্বজনরা উদ্ধার করে নিজ নিজ বাড়িতে নিয়ে আসে। সোমবার সকাল ১১টায় চারিতলা গ্রামের বাড়িতে রুবেল ও তার ছেলে শাহরিয়ারের নামাজের জানাযা একসঙ্গে অনুষ্ঠিত হয়। জানাযায় মানুষের ঢল নামে।

এর আগে সকাল নয়টায় মোজাফরপুর গ্রামে নিজ বাড়ি প্রাঙ্গণে নামাজে জানাযা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয় রফিকুল ইসলামকে। রোববার সকালে বাড়ি থেকে মোটর সাইকেল যোগে কিশোরগঞ্জ যাচ্ছিলেন রুবেল।

পারিবারিক সূত্র জানায় রুবেলের ছেলে শাহরিয়ার অসুস্থ থাকায় কিশোরগঞ্জ যাচ্ছিলেন ছেলেকে নিয়ে চিকিৎসার জন্য। মোটর সাইকেল চালাচ্ছিলেন তার ভগ্নিপতি রফিকুল, কিন্তু ভৈরব থেকে একটি যাত্রীবাহী বাস নেত্রকোনার দিকে আসছিল। ডাউকিয়া কাটা বাড়ি এলাকায় আসামাত্রই বাসটির সঙ্গে মোটর সাইকেলটির ধাক্কা লেগে ধুমরেমুছরে যায়। এসময় ঘটনাস্থলেই নিহত হয় রুবেল ও তার সন্তান শাহরিয়ার।

পথচারিরা রফিকুলকে উদ্ধার করে কিশোরগঞ্জ হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বিকেলে মারা যায় রফিকুল। এই সড়ক দূর্ঘটনায় পিতা পুত্রের নিহত হওয়ার পর একসঙ্গে জানাযা অনুষ্ঠিত হওয়ায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

প্রিন্স, ঢাকা