কুষ্টিয়ার পোড়াদহে বিশ্ব মাতৃদুগ্ধ সপ্তাহ উপলক্ষে উঠান বৈঠক

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি: মায়ের দুধ পান সুস্থ জীবনের বুনিয়াদ। এই শ্লোগানকে সামনে রেখে শিশুকে মায়ের দুধ খাওয়ানোর গুরুত্ব তুলে ধরে বিশ্ব মাতৃদুগ্ধ সপ্তাহ ১-৭ আগষ্ট উপলক্ষে জনসচেতনতা বৃদ্ধির জন্য সমাপনি দিনে গতকাল মঙ্গলবার সকাল ১০টায় কুষ্টিয়ার পোড়াদহে সাফ এর আয়োজনে মা‘দের নিয়ে এক উঠান বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। আব্দুল হাকিমের পরিচালনায় আশা বেগমের সভাপতিত্বে প্রধান আলোচক হিসাবে বক্তব্য রাখেন, সাফ‘র নির্বাহী পরিচালক মীর আব্দুর রাজ্জাক।

অনুষ্ঠানে কিনোট পেপার পাঠ করেন আরফিনা খাতুন। মীর আব্দুর রাজ্জাক বলেন, শিশুর জন্য মায়ের দুধের বিকল্প নেই। জন্মের পর থেকে ৬ মাস পর্যন্ত শুধুমাত্র মায়ের দুধই শিশুর একমাত্র খাবার। এমনকি পানি বা অন্য খাবার দেওয়া যাবে না।

জন্মের পরপরই শিশুকে শাল দুধ খাওয়াতে হবে। শাল দুধ শিশুর জীবনের প্রথম টিকা হিসাবে কাজ করে। মায়ের দুধ এন্টিবডি হিসাবে কাজ করে থাকে, যা শিশুর রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে। মায়ের দুধ খেলে শিশুর জন্ডিসের আশংকা থাকে না। শিশুর ৬ মাস বয়স পর্যন্ত মায়ের দুধই খাদ্য ও পুষ্টি চাহিদা পূরণ করে। শিশু খুব তাড়াতাড়ি ও সহজেই মায়ের দুধ হজম করতে পারে। মায়ের দুধে শিশুর সর্বোচ্চ শারীরিক বৃদ্ধি, মানসিক ও বুদ্ধির বিকাশ ঘটে। আলোচনা শেষে মায়েদের মাঝে পোষ্টার ও লিফলেট বিলি করা হয়।

প্রিন্স, ঢাকা