কুলাউড়ায় অধ্যক্ষ সিপার উদ্দিন আহমদের বিরুদ্ধে অপপ্রচারের নিন্দা

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি :: মৌলভীবাজারের কুলাউড়া উপজেলার ভাটেরা স্কুল এন্ড কলেজের গভর্নিং বডির এক সভা মঙ্গলবার কলেজ হলরুমে গভর্নিং বডির সভাপতি ও উপজেলা চেয়াম্যান আসম কামরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। সভায় প্রতিষ্টানের অধ্যক্ষ সিপার উদ্দিন আহমদের বিরুদ্ধে ভাটেরা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান একেএম নজরুল ইসলামের করা অপপ্রচার এবং তা বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশের নিন্দা জানানো হয়।

সভায় নিন্দা প্রস্তাব গ্রহন করে উল্লেখ করা হয় ঐতিহ্যবাহী ভাটেরা স্কুল এন্ড কলেজ প্রতি বছর এইচ এসসি,এস এস সি ও জেএসসি পরীক্ষায় ভাল ফলাফল করে আসছে। তারই ধারাবাহিকতায় এবছর এসএসসিতে ৮টি জিপিএ-৫,এইচএসসিতে পাশর্^বর্তী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও শহরের দু একটি সুনামধন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের চেয়ে পাশের হার বেশী, জেএসসিতে গত বছর ১৬ জন শিক্ষার্থীর জিপিএ-৫ লাভ, পাশের হার ছিল ৯৩.৫। এছাড়া অবকাঠামোগত উন্নয়নে ধাপে ধাপে এগিয়ে যাচ্ছে এ প্রতিষ্ঠান। সম্পুর্ন রাজনীতিমুক্ত সুশৃঙ্খল ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে চলছে পাঠদান। সরকারের শিক্ষানীতির আলোকে শিক্ষাক্রম বাস্তবায়নে এগিয়ে যাচ্ছে ভাটেরা স্কুল এন্ড কলেজ। প্রতিষ্ঠানের ক্রমাগত সাফল্যে ঈর্ষান্বিত হয়ে কতিপয় স্বার্ধন্বেষী নানা ষড়যন্তে লিপ্ত রয়েছে।

সম্প্রতি ভাটেরা ইউনিয়নের চেয়াম্যান ইউনিয়ন কমপ্লেক্সে একটি সভা করে অধ্যক্ষ সিপার উদ্দিন আহমদের বিরুদ্ধে উদ্দেশ্য প্রনোদিতভাবে মিথ্যা, বানোয়াট, মনগড়া অভিযোগ এনে বক্তব্য দিয়ে প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে এলাকাবাসীকে উত্তেজিত করার চেষ্টা করেন। উক্ত বিষয়টি দু’একটি পত্রিকা ও অনলাইন পত্রিকায় প্রকাশ করা হয়। নিন্দা প্রস্তাবে বলা হয় এটা শুধু অধ্যক্ষ নয় উক্ত প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে একটি পরিকল্পিত ষড়যন্ত্র। সভায় চেয়ারম্যান নজরুল ইসলামের প্রতিষ্ঠান বিরোধী তৎপরতার এবং সত্যতা যাচাই না করে অসত্য সংবাদ প্রকাশ করায় প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ ও নিন্দা জানিয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহন করা হয়।

সভায় অধ্যক্ষ সিপার উদ্দিন আহমদ ছাড়াও গভর্নিং বডির শিক্ষানুরাগী সদস্য মো. আব্দুল লতিফ,মো. উমেদ আলী, অভিভাবক সদস্য সৈয়দ সিরাজুল ইসলাম, মোঃ আজাদ মিয়া. মো. বাবর মিয়া, মো. সাহেদুর রহমান, শিক্ষক প্রতিনিধি মো. আব্দুল হামিদ খান, মহিলা অভিভাবক সদস্য আশফা বেগম উপস্থিত ছিলেন।