রাবিতে পারমানবিক বিদ্যুৎশক্তি বিষয়ক সেমিনার

রাবি প্রতিনিধি: বাংলাদেশ সরকারের পারমানবিক শক্তি তথ্যকেন্দ্র এর উদ্যোগে পরমাণু বিজ্ঞান সপ্তাহের অংশ হিসেবে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে পারমানবিক বিদ্যুৎশক্তি বিষয়ক এক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টায় সিনেট ভবনে অনুষ্ঠিত এ সেমিনারের উদ্বোধন করেন প্রধান অতিথি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর এম আব্দুস সোবহান।

সেমিনারে উপাচার্য তাঁর বক্তৃতায় বলেন, বাংলাদেশে পারমানবিক শক্তি বিশেষ করে পারমানবিক বিদ্যুতের জন্য প্রচেষ্টা এই প্রথম নয়। এর শুরু ১৯৬২ সালে যার ধারাবাহিকতায় স্বাধীনতার পরেও বিশিষ্ট পরমাণু বিজ্ঞানী ড. ওয়াজেদ মিয়ার উদ্যোগে সে প্রচেষ্টা এগিয়ে যায়। এই পারমানবিক চুল্লি স্থাপনের ফলে তুলনামূলকভাবে সস্তা বিদ্যুৎ উৎপাদনের পাশাপাশি দেশে চিকিৎসা ও পরমাণু গবেষণা ক্ষেত্রেও যুগান্তকারী উন্নতি ঘটবে।

তিনি আরও বলেন, দীর্ঘদিন থেকে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে নিউক্লীয় পদার্থবিজ্ঞানে পঠন-পাঠন চলছে। এই পরমাণু চুল্লি চালু হলে সেটিকে ল্যাব হিসেবে ব্যবহার করে নিউক্লীয় প্রকৌশল ও প্রযুক্তিতে আমাদের অভিজ্ঞ শিক্ষকমন্ডলী বিশ্বমানের প্রশিক্ষণ ও গবেষণা কাজ করতে পারবেন। যা দেশে পরমাণু গবেষণার ক্ষেত্রে এক নতুন বাতায়ন উন্মোচন করবে।

সেমিনারে অন্যান্যদের মধ্যে রাশিয়ার উরাল ফেডারেল ইউনিভার্সিটির শিক্ষক ড. ওলেগ তাসলিকভ, বাংলাদেশ পরমাণু শক্তি কমিশনের সাবেক চেয়ারম্যান ড. শফিকুল ইসলাম ভুইয়া ও প্রকৌশলী মো. আলী জুলকারনায়েন ৩টি প্রবন্ধসহ মাল্টিমিডিয়ায় ডিসপ্লে উপস্থাপন করেন। প্রবন্ধ উপস্থাপকগণ সেখানে উপস্থিত শিক্ষক, শিক্ষার্থী, বিজ্ঞানী ও গবেষকদের প্রশ্নেরও উত্তর দেন।

পদার্থবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক রায়হানা শামস্ ইসলামের সঞ্চালনায় ও বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক মো. গোলাম মত্তুজার সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন উপ-উপাচার্য প্রফেসর আনন্দ কুমার সাহা, জনসংযোগ দপ্তরের প্রশাসক প্রফেসর প্রভাষ কুমার কর্মকার, প্রক্টর প্রফেসর মো. লুৎফর রহমান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।