আর্জেন্টিনাকে চায় ফ্রান্স

নিউজ ডেস্ক: রাশিয়া বিশ্বকাপে গ্রুপ ‘ডি’ থেকে দ্বিতীয় রাউন্ড নিশ্চিত করেছে কেবল ক্রোয়েশিয়া। আর গ্রুপ ‘সি’ থেকে দ্বিতীয় রাউন্ডে চলে গেছে ফ্রান্স। দু’দলেরই এখন লক্ষ্য গ্রুপ সেরা হয়ে নক আউট পর্বে যাওয়া। ফ্রান্স নিজেদের শেষ ম্যাচে ডেনমার্ককে হারিয়ে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়েই শেষ ষোলোয়া যাবে বলে আশাবাদী। আর শেষ ষোলোয় তারা ক্রোয়েশিয়ার মুখোমুখি হতে চায় না বলে জানিয়েছে। তার থেকে মেসির আর্জেন্টিনাকে বেশি পছন্দ ফ্রান্সের।

গ্রুপ ‘সি’র ম্যাচে আর্জেন্টিনা যদি নাইজেরিয়াকে হারায় তবে গ্রুপ রানার্স আপ হয়ে দ্বিতীয় রাউন্ডে যাবে তারা। আর নাইজেরিয়া যদি আর্জেন্টিনাকে হারায় আবার ক্রোয়েশিয়া শেষ ম্যাচে আইসল্যান্ডের বিপক্ষে হেরে যায় তবে সমীকরণ অন্য রকম হবে। নাইজেরিয়া হবে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন। তবে আর্জেন্টিনা নিজেদের বাঁচা-মরার ম্যাচে নাইজেরিয়াকে হারাতে পারবে এটা অনেকেই ধরে নিয়েছেন। দ্বিতীয় রাউন্ডে আর্জেন্টিনার বিপক্ষে খেলার আগ্রহ প্রকাশ করা ফ্রান্স তারকা পগবার কথাতেই তা স্পষ্ট।

পগবা বলেন, ‘ক্রোয়েশিয়া ‘ডি’ গ্রুপের সেরা দল। তারা এতোটাই ভালো দল যারা আর্জেন্টিনাকে হারাতে পারে।’ মডরিচ-রাকিটিচদের মুখোমুখি হতে চাননা উল্লেখ করে পগবার জাতীয় দল সতীর্থ করেন্টিন টালিসো বলেন, ‘ক্রোয়েশিয়া তাদের গ্রুপের সেরা দল। আমরা চেষ্টা করবো কোনভাবেই যেন গ্রুপ রানার্স আপ হয়ে শেষ করতে না হয়।’

তবে আর্জেন্টিনার বিপক্ষে খেলতে হলেও কাজটা ফ্রান্সের জন্য সহজ হবে না। কারণ তাদের আক্রমণভাগে ভালো কিছু খেলোয়াড় আছে। ফ্রান্সের বায়ার্ন মিউনিখ মিডফিল্ডার টালিসো জানেন সেটা। তিনি বলেন, ‘আর্জেন্টিনার সতন্ত্র কিছু খেলোয়াড় আছে। বিশেষ করে মেসি। যে মাঠে যেকোন কিছু ঘটিয়ে ফেলতে পারে।’

রাশিয়া বিশ্বকাপে নিজেদের সম্ভাবনার কথা জানিয়ে পগবা বলেন, বড় দল গুলোর মধ্যে তারাই নিজেদের প্রথম দুই ম্যাচ জিতে দ্বিতীয় রাউন্ড নিশ্চিত করেছে। তবে অন্য কিছু দল যেভাবে বড় দলগুলোকে বিপাকে ফেলেছে তাতে ফ্রান্স সতর্ক হয়ে গেছে। ম্যানইউ মিডফিল্ডার পগবা বলেন, ‘আমরা এখানে উৎসব করতে আসেনি, জিততে এসেছি। আমাদের হাতে ভালো একটি দল আছে, দারুণ কিছু খেলোয়াড় আছে। বিশ্বকাপ জেতার সুযোগ আছে আমাদের। বিশ্বকাপে খেলতে আসা কোন দলই ছোট নয়। আমাদের শেষ পর্যন্ত লড়তে হবে এবং আরও শক্তিশালী হতে হবে।’