মেঘনায় লঞ্চের ধাক্কায় বাল্কহেড ডুবি

নিউজ ডেস্ক: চাঁদপুরের মতলব উত্তর উপজেলার মেঘনা নদীর জহিরাবাদ এলাকায় এমভি গ্রিনলাইন-৩ নামক লঞ্চের সাথে ধাক্কা লেগে একটি বাল্কহেড ডুবে গেছে। এই ঘটনায় দুই শতাধিক যাত্রী নিয়ে লঞ্চটি বিকল হয়ে পড়েছে। এতে হতাহতের কোন খবর পাওয়া যায়নি।

আজ শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে উপজেলার ফরাজীকান্দি ও জহিরাবাদ এলাকার মাঝামাঝি স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে। বাল্কহেডের সাথে লঞ্চের ধাক্কা লাগায় লঞ্চটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে স্থানীয় চরে উঠে পড়ে। জোয়ারের পানি না বাড়া পর্যন্ত লঞ্চটি নামানো সম্ভব না বলে জানায় লঞ্চ কর্তৃপক্ষ। দ্রুতগামী লঞ্চটি ঢাকা থেকে বরিশাল যাচ্ছিল। বর্তমানে লঞ্চটি জহিরাবাদ এলাকার একটি চরে আটকা আছে।

এমভি গ্রিনলাইনের ম্যানেজার শামছুল আরেফীন জানায়, সকাল ৮টায় দুই শতাধিক যাত্রী নিয়ে ঢাকার সদরঘাট থেকে ছেড়ে আসে লঞ্চটি।কয়েকটি বাল্কহেডকে উল্টাপাল্টা চালাতে দেখে মাইকিং করে সরে যেতে বলা হয়। তারপরও একটি বাল্কহেডের সাথে ধাক্কা লাগলে গ্রিনলাইনের ইঞ্জিন বিকল হয় এবং লঞ্চটি বর্তমানে স্থানীয় চরে আটকা আছে। তবে দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে সদরঘাট থেকে গ্রিনলাইন-১ ওই লঞ্চের যাত্রীদের নিয়ে বরিশাল পৌঁছে দিচ্ছে।

স্থানীয় মোহনপুর নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ ইন্দ্রজিৎ দাশ বলেন, দুর্ঘটনার পর গ্রিনলাইন-৩ ঘটনাস্থল জহিরাবাদ এলাকাতেই আছে। ডুবে যাওয়া বাল্কহেডটির স্টাফরা সাঁতরিয়ে তীরে উঠে আসে। বর্তমানে গ্রিনলাইন-৩ এর কাছে আমাদের মোহনপুর নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির পুলিশ অবস্থান করছে।