চীন সফরে যাচ্ছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি

নিউজ ডেস্ক: শুক্রবার চীন সফরে যাচ্ছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তার এ সফরের গুরুত্ব কতটা তা নিরাপত্তার একটি ঘটনার থেকেই পরিষ্কার হয়ে গেলো৷ বিশেষ সফরে বেজিং পৌঁছানোর আগে নরেন্দ্র মোদির নিরাপত্তায় চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং যেটা করলেন তা রীতিমতো চমকপ্রদ৷ খবর কলকাতাটোয়েন্টিফোরের।

মোদির সফরকে ঘিরে সতর্কতার অংশ হিসেবে ইতিমধ্যে হুবেই প্রদেশে কড়া নিরাপত্তা জারি করেছে চীনা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। মোদি যে হোটেলে থাকবেন, তার কোনো জানালা খোলা যাবে না৷ এমনকি হোটেলের সামনে থাকা কোনো বাড়ির জানালা খোলার ওপরেও নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে৷ ভিভিআইপি এ অতিথির নিরাপত্তার জন্য এসব ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে চীনা সংবাদ মাধ্যম৷

বুহান শহরের সর্বত্র জারি করা হয়েছে সতর্কতা৷ এই শহরে দু’দিন থাকবেন নরেন্দ্র মোদি৷ স্থানীয় প্রশাসন বিজ্ঞপ্তি দিয়ে জানিয়েছে, শুধু হোটেল বা তার আশেপাশের বাড়ির জানালাই নয়, যে কোনো রকম প্রতিষ্ঠানের জানালাও বন্ধ রাখতে হবে৷

চীনের মধ্যাঞ্চলের হুবেই প্রদেশর রাজধানী শহর বুহানে মোদির সঙ্গে চিনা প্রেসিডেন্ট জিনপিংয়ের বৈঠক হবে৷ ফলে নিরাপত্তার কড়াকড়িতে রয়েছে বুহান শহর৷ ইতিমধ্যেই সেখানকার যান চলাচলে নিয়ন্ত্রণ আরোপ করা হয়েছে৷

সীমান্ত নিয়ে চীন ও ভারতের মধ্যে উত্তেজনা তীব্র আকার নিচ্ছে৷ চীন-ভারত-ভুটান সংলগ্ন ডোকলাম ভূখণ্ডে চীনা সেনাদের সতর্ক অবস্থানের জেরে পরিস্থিতি আরও অস্থির হয়েছে৷ আবার লাদাখ ও অরুণাচল প্রদেশ লাগোয়া সীমান্ত এলাকায় চীনা সেনাদের অনুপ্রবেশ নিয়ে ক্ষুব্ধ দিল্লি৷ যদিও বেইজিং বিষয়টিকে পাত্তা দিতে নারাজ৷

এমনই পরিস্থিতিতে চীন সফর মোদির কাছে খুবই গুরুত্বপূর্ণ৷ দিল্লি ও বেজিংয়ের কূটনৈতিক সূত্র বলছে, দুই রাষ্ট্রপ্রধানের মধ্যে আলোচনা আনুষ্ঠানিক নয়৷ তাদের বৈঠকে যা আলোচনা হবে, তা লিখিত আকারে ধরা থাকবে না। এরপরও মোদির এ সফরকে বিশেষ গুরুত্ব দিচ্ছে চীন৷