দ্রততম মানব-মানবী হলেন আকানি-মিশেল লি

নিউজ ডেস্ক: আজ অনুষ্ঠিত হল কমনওয়েলথ গেমসের সবচেয়ে আকর্ষনীয় ইভেন্ট পুরুষ ও নারী বিভাগের ১০০ মিটার ইভেন্ট। ইভেন্টে সবার আগে দূরত্ব অতিক্রম করে আসরের দ্রুততম মানবের মুকুট মাথায় পরেছেন দক্ষিণ আফ্রিকান স্প্রিন্টার আকানি সিম্বনি। আর দ্রুততম মানবীর মুকুট পড়েছেন ত্রিনিদাদ এন্ড টোবাগোর মিশেল লি আইছে।

উসাইন বোল্টের অনুশীলনের সঙ্গী জ্যামাইকান তারকা ইয়োহান ব্লেককে ঘিরে সবার জল্পনা কল্পনা দেখা গেলেও তাকে পাত্তাই দেননি দক্ষিণ আফ্রিকান স্প্রিন্টাররা। দর্শক ঠাসা গোল্ডকোস্টের কারারা স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত প্রতিযোগিতায় দক্ষিণ আফ্রিকার সিম্বনি ১০.০৩ সেকেন্ডে দৌঁড় শেষ করে জয় করেন স্বর্ণপদক। তার স্বদেশী ব্রুন টিয়েস হ্যারিস ১০.১৭ সেকেন্ডে দৌঁড় শেষ করে জিতেন রূপার পদক।জ্যামাইকান স্প্রিন্টার ইয়োহান ব্লেক ১০.১৯ সেকেন্ড সময় নিয়ে তৃতীয় হন। ফলে গলায় পড়তে হয় ব্রোঞ্জ পদক।

একই ভেন্যুতে অনুষ্ঠিত নারীদের ১০০ মিটার স্প্রিন্টে ত্রিনিদাদ অ্যান্ড টোবাগোর মিশেল লি আইছে ১১.১৪ সেকেন্ড সময়ে জিতে নেন স্বর্ণপদক। জ্যামাইকার ক্রিস্টিনা উইলিয়ামস ১১.২১ সেকেন্ড সময় নিয়ে পান রৌপ্য এবং স্বদেশী গায়োন ইভান্স ১১.২২ সেকেন্ড সময় নিয়ে ব্রোঞ্জপদক লাভ করেন।