দৌলতপুরে ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি: কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে এনামুল কাজী (৪৫) নামে এক গরু ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। শুক্রবার রাত ১০ টার দিকে উপজেলার খলিশাকুন্ডি ইউনিয়নের মৌবাড়িয়া গ্রামে হত্যাকান্ডের এ ঘটনা ঘটে। নিহত এনামুল কাজী একই এলাকার সমসের কাজীর ছেলে। এ ঘটনায় প্রতিক্ষের বাড়তে আগুন জ্বালিয়ে সম্পদ ভষ্মিভূত করা হয়েছে। পুলিশ জিজ্ঞাসবাদের জন্য পিতা-পুত্রসহ ৩জনকে আটক করেছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, মৌবাড়িয়া গ্রামের মসজিদ ও ঈদগাহর জায়গা ঘেরা নিয়ে নিয়ে স্থানীয় দুই পক্ষের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিল। এরই জের ধরে শুক্রবার রাতে মৌবাড়িয়া বাজারে আমিরুল ইসলামকে লাঞ্ছিত করে। পরে আমিরুল ইসলাম পক্ষের লোকজন ধারাল অস্ত্রে সজ্বিত হয়ে প্রতিপক্ষের লোকজনের ওপর হামলায় চালায়। হামলায় এনামুল কাজীকে ধারাল অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করা হয়।

পরে রাত ২টার দিকে পুলিশের উপস্থিতিতে আমিরুল ইসলামের বাড়িতে আগুন জ্বালিয়ে ব্যাপক ক্ষতি সাধন করা হয় বলে আমিরুল ইসলাম পক্ষের লোকজন অভিযোগ করেছেন। খবর পেয়ে দৌলতপুর থানা পুলিশ রাতেই ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে উত্তপ্ত পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন করে এবং নিহত এনামুল কাজীর লাশ উদ্ধার করে আজ শনিবার সকালে মর্গে প্রেরন করে। এঘটনায় ফারুক হোসেন (৩০), কালাম (২৫) ও তার বাবা পলান (৫৮) নামে ৩জনকে আটক করা হয়।

হত্যাকান্ডের বিষয়ে দৌলতপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহ দারা খাঁন পিপিএম জানান, বর্তমানে এলাকার পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৩জনকে আটক করা হয়েছে। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত মামলা হয়নি। লাশের ময়না তদন্ত ও দাফন শেষে নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে মামলা দায়ের করা হতে পরে বলে ধারণা করা হচ্ছে। প্রতিপক্ষের বাড়িতে আগুন দেওয়ার বিষয়ে ওসি শাহ দারা খাঁন বলেন, রাত ১১টার পর কে বা কারা এক বাড়িতে আগুন দিয়েছিল। পরে তা নিয়ন্ত্রন করা হয়েছে।

তবে ওই এলাকায় আতংক ও থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে এবং হামলাকারীরা এলাকা গা ঢাকা দিয়েছে

প্রিন্স, ঢাকা