পারমাণবিক বোমা বানাবে সৌদি!

নিউজ ডেস্ক:  মধ্যপ্রাচ্যে প্রতিবেশী দুই দেশ সৌদি আরব ও ইরানের মধ্যে সম্পর্ক বরাবরই বৈরি। আঞ্চলিক আধিপত্য বজায় রাখতে ক্ষমতায় নিজেদের একটুও পিছিয়ে রাখতে রাজি নয় তারা। তাই হয়তো সৌদি যুবরাজ মুহাম্মদ বিন সালমান ঘোষণা দিয়েছেন, ইরান যদি পারমাণবিক বোমা নির্মাণ করে, তাহলে সৌদি আরবও একই কাজ করবে।

গত রোববার সংবাদমাধ্যম সিবিএসকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এমনই ঘোষণা দেন সৌদি যুবরাজ। গতকাল বৃহস্পতিবার তা বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়।

সাক্ষাৎকারে মুহাম্মদ বিন সালমান বলেন, ‘সৌদি আরব কোনো পারমাণবিক বোমা বানাতে চায় না। কিন্তু এতে কোনো সন্দেহ নেই যে ইরান যদি পারমাণবিক বোমা বানায়, আমরা শিগগিরই তা করবো।’

সৌদি যুবরাজ এ সময় ইরানের ধর্মীয় নেতা আয়াতোল্লাহ আলি খামেনিকে ‘নতুন হিটলার’ বলে আখ্যায়িত করে বলেন, ‘হিটলার যেমন ওই সময়ে নিজেদের বাড়াতে চেয়েছিলেন, মধ্যপ্রাচ্যেও তিনি (খামেনি) একই কাজ শুরু করতে চলেছেন।’

‘বিশ্বের অনেক দেশ ও ইউরোপ যতক্ষণ না সর্বনাশ হয়নি, ততক্ষণ হিটলার কতো ভয়ঙ্কর তা বুঝতে পারেনি। মধ্যপ্রাচ্যে একই ঘটনা ঘটুক আমি চাই না।’

এর আগে ২০১৬ সালের অক্টোবরে পারমাণবিক উন্নয়নের ইঙ্গিত দিয়েছিলেন সৌদি আরবের জ্বালানিমন্ত্রী খালিদ আল ফাতাহ। বিদ্যুৎ উৎপাদনের জন্য তিনি দুটি পারমাণবিক চুল্লি স্থাপন করতে চেয়েছিলেন। ওই দুটি পারমানবিক চুল্লি নির্মাণের জন্য এরই মধ্যে যুক্তরাষ্ট্র, রাশিয়া, চীন, ফ্রান্স ও দক্ষিণ কোরিয়া আগ্রহ প্রকাশ করেছে।