ওয়ানডে মর্যাদা অর্জন নেপালের

নিউজ ডেস্ক:  বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের প্লে অফে পাপুয়া নিউগিনিকে হারিয়ে ৬ উইকেটে হারিয়ে প্রথমবারের মতো ওয়ানডে মর্যাদা পেল সার্কভুক্ত দেশ নেপাল। বৃহস্পতিবার হারারেতে পাপুয়া নিউগিনিকে ৬ উইকেটে হারিয়ে ওয়ানডে মর্যাদা অর্জন করে তারা।

২০১০ সালেও ওয়ার্ল্ড ক্রিকেট লিগের পঞ্চম ডিভিশনে থাকা নেপালের ক্রিকেট বোর্ডের ওপর ২০১৬ সাল পর্যন্ত নিষেধাজ্ঞা ছিল আইসিসির। তবে তাদের মাঠের খেলায় এই নিষেধাজ্ঞার কোনো প্রভাব পড়েনি। গত মাসে কানাডার বিপক্ষে শেষ বলে ১ উইকেটের রোমাঞ্চকর জয় দিয়ে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে উঠে আসে নেপাল।

পাপুয়া নিউগিনিকে ১১৪ রানেই গুটিয়ে দিয়েছিল নেপাল। দীপেন্দ্র সিং ও সন্দ্বীপ লামিচানে নিয়েছেন ৪টি করে উইকেট। ৪ উইকেট হারিয়ে ম্যাচটি ২৭ ওভার হাতে রেখেই জেতে নেপালিরা।

নেপালের প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে আইপিএলে খেলার সুযোগ পাওয়া লামিচানে ওয়ানডে স্ট্যাটাস পাওয়ার আনন্দে টুইট করেন,‘জীবনে সবচেয়ে গর্বের মুহূর্ত। দারুণ এক অভিযাত্রা, নেপাল—ওয়ানডে দল!’

নেপালের এই অর্জনে অভিনন্দন জানিয়ে পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক ইনজামাম উল হকের টুইট, ‘ওয়ানডে মর্যাদা পাওয়ায় নেপালকে অভিনন্দন। এক দারুণ অভিযাত্রা!’

অস্ট্রেলিয়ার সাবেক অধিনায়ক মাইকেল ক্লার্ক তাঁর টুইটে বলেন, ‘নেপালের সবাইকে অভিনন্দন।’

উল্লেখ্য, ইতিমধ্যেই একটি বিশ্বকাপ খেলার সুযোগ অর্জনের কৃতিত্ব দেখিয়েছে নেপাল ক্রিকেট দল। ২০১৪ সালে বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত টি-২০ বিশ্বকাপে খেলেছিল তারা।