চুলের সঙ্গে প্রতিনিয়ত যে ভুলগুলো করছেন

নিউজ ডেস্ক: আমরা না জেনেই এমন কিছু ভুল কাজ করি, যে কারণে ক্ষতিগ্রস্ত হয় চুল।

রূপচর্চাবিষয়ক ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে চুলের সঙ্গে প্রতিনিয়ত করা ভুলগুলো সম্পর্কে জানা যায়। এই ভুলগুলো এড়িয়ে চললেই চুলের স্বাভাবিক সৌন্দর্য ধরে রাখা সম্ভব। 

ভেজা চুল নিয়ে বাসা থেকে বের হওয়া: বাসা থেকে ভেজা চুল নিয়ে বের হওয়া মানে হল সেচ্ছায় চুলের ক্ষতি করা। ভেজা চুল নিয়ে বের হলে তা দূষণে আক্রান্ত হয় এবং চুল শুকানোর সঙ্গে সঙ্গে ধুলাবালি বা ময়লা ভালোভাবে মাথায় বসে যায়। তাই চেষ্টা করুন চুল শুকিয়ে বাসা থেকে বের  হতে।

অতিরিক্ত চুল আঁচড়ানো: আমরা চাই চুল কোমল ও মসৃণ থাকুক। তার মানে এই নয় যে সারাক্ষণই চুল আঁচড়াতে হবে। অতিরিক্ত ব্রাশ করলে চুল সহজে ভেঙে যায়, আগা ফাটার সমস্যা দেখা দেয়। এমনকি জট ছাড়ানোর সময় অতিরিক্ত সচেতনতারও প্রয়োজন পরে। চুল ভাঙা ও ছিঁড়ে যাওয়ার সমস্যা এড়াতে প্রথমে জট ছাড়ান। তারপর সম্পূর্ণ চুল আঁচড়ান।

চিরুনি পরিষ্কার না করা: এ কাজটা বেশ বিরক্তিকর। তারপরও সবারই এটা করা উচিত। শ্যাম্পু ও পানি দিয়ে চিরুনি পরিষ্কার করুন। এতে চিরুনিতে জমে থাকা ময়লা ও তেল দূর হয়ে যাবে। নিশ্চই চান না যে আপনার চুলে চিরুনির ময়লা বসে যাক। আর প্রতিবার আঁচড়ানোর পরে চিরুনির গায়ে আটকে থাকা চুল জমিয়ে না রেখে ফেলে দিন।    

মাস্ক ব্যবহার না করা: চুল সুন্দর রাখার জন্য নিয়মিত পরিচর্যার প্রয়োজন। ভেতর ও বাইরে থেকে চুল সুস্থ রাখার জন্য অত্যাবশ্যকীয় পুষ্টি উপাদান সরবারহ করা উচিত। সপ্তাহে একবার চুলের মাস্ক ব্যবহার করা হলে তা চুলের প্রয়োজনীয় শক্তি সরবারহ করবে। আর সামনের সপ্তাহের জন্য চুলকে মসৃণ রাখবে। 

প্রতিদিন চুল ধোয়া: প্রতিদিন চুল ধোয়া হলে এর প্রাকৃতিক তেল কমে যায়। চুল নির্জীব, শুষ্ক ও রুক্ষ মনে হয়। চুল খুব বেশি চিটচিটে মনে হলে শুষ্ক শ্যাম্পু ব্যবহার করতে পারেন।