বিমান ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় স্থায়ী কমিটির বৈঠক

স্টাফ রিপোর্টার: দশম জাতীয় সংসদের বেসামরিক বিমান পরিবহণ ও পর্যটন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির ৩৪তম বৈঠক রবিবার কমিটির  সভাপতি মুহাম্মদ ফারুক খানের সভাপতিত্বে সংসদভবনে অনুষ্ঠিত হয়। কমিটির সদস্য বেসামরিক বিমান পরিবহণ ও পর্যটন মন্ত্রী এ কে এম শাহজাহান কামাল, মোঃ আলী আশরাফ, তানভীর ইমাম, কামরুল আশরাফ খান, মোঃ আফতাব উদ্দীন সরকার, রওশন আরা মান্নান এবং বেগম সাবিহা নাহার বৈঠকে অংশগ্রহণ করেন।

বৈঠকে হযরত খান জাহান আলী ও ঢাকার বাইরে অন্যান্য বিমানবন্দরের উন্নয়নমূলক কাজ, বিমান বাংলাদেশ এয়ার লাইনস্ এর টিকেটিংয়ের আধুনিকায়নকরণে গৃহীত ব্যবস্থা, হোটেল শৈবাল পিপিপিতে ছেড়ে দেয়ার শর্তাবলি এবং হোটেল সোনারগাঁও, হোটেল রূপসী বাংলার সংস্কার কাজের অগ্রগতির ওপর বিস্তারিত আলোচনা করা হয়।

হযরত খান জাহান আলী বিমানবন্দরের জমি অধিগ্রহণ করে পিপিপির মাধ্যমে উন্নয়নমূলক কাজ শুরু এবং ঢাকার বাইরে অন্য বিমানবন্দরগুলোর রানওয়েসহ অবকাঠামোগত যে সকল সমস্য পরিলক্ষিত হচ্ছে সে বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের সুপারিশ করা হয়। বিমানে অভ্যন্তরীণ ও আন্তর্জাতিক রুটে সিট খালি থাকে, বুকিং দেয়ার সময় সিট পাওয়া যায় না, এছাড়া বিমান বিলম্ব  হলে যাত্রীকে অবহিত করা হয় না- এ সকল বিষয়ে বিমানকে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণের সুপারিশ করা হয়।

হোটেল শৈবাল পিপিপিতে ছেড়ে দেয়া হলে জমির মালিকানা যাতে পরিবর্তন না হয় এবং পর্যটন কর্পোরেশনের চুক্তিতে কঠিন শর্তাবলি থাকবে যা পালনে লিজ গ্রহণকারী প্রতিষ্ঠান বাধ্য থাকে, প্রয়োজনে জরিমানার বিধান রাখাসহ অন্যান্য দেশের পিপিপির শর্তাবলি পর্যালোচনার সুপারিশ করা হয়। 

প্যানপ্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলের সকল কাজ সমাপ্ত করে আগামী জুলাই ২০১৮ সালের মধ্যে এবং রূপসী বাংলা হোটেলের সকল সংস্কার কাজ শেষে আগামী মে ২০১৮ সালের মধ্যে চালু করার বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য মন্ত্রণালয়কে কমিটি কর্তৃক সুপারিশ করা হয় ।

বেসামরিক বিমান পরিবহণ ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের সচিব, বিমান পরিচালনা পর্ষদের চেয়ারম্যান, সিভিল এভিয়েশন ও পর্যটন কর্পোরেশনের চেয়ারম্যানসহ মন্ত্রণালয় ও জাতীয় সংসদ সচিবালয়ের সংশ্লিষ্ট  কর্মকর্তাবৃন্দ বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।